২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

ঢাকা-মদিনা রুটে সরাসরি ফ্লাইট চালু

স্টাফ রিপোর্টার ॥ বহুল প্রতীক্ষিত ঢাকা-মদিনার সরাসরি ফ্লাইট চালু হলো। ২৫০ যাত্রী নিয়ে বেসরকারী ইউনাইটেড এয়ারওয়েজের প্রথম শুক্রবার ফ্লাইট হযরত শাহজালাল বিমানবন্দর ঢাকা ছেড়ে যায়।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন বিমানমন্ত্রী রাশেদ খান মেনন, সংসদ সদস্য মইন উদ্দিন খান বাদল, ইউনাইটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ক্যাপ্টেন তাসবীরুল আহমেদ চৌধুরী।

জনসংযোগ শাখার ডিজিএম কামরুল ইসলাম জানান, ঢাকা-মদিনা-ঢাকা রুটে সপ্তাহে তিনদিন ১৬৭ আসনের এমডি-৮৩ এয়ারক্রাফট দিয়ে পরিচালিত হবে। ওয়ানওয়ের জন্য স্পেশাল ভাড়া নির্ধারণ করা হয়েছে ২৭ হাজার ২৪৩ এবং রিটার্ন ৭১ হাজার ৯১৮ টাকা। প্রাথমিক পর্যায়ে সপ্তাহে বুধ, শুক্র ও রবিবার ঢাকা ও মদিনার মধ্যে ফ্লাইট পরিচালিত হবে। ঢাকা থেকে মদিনার উদ্দেশে ৬টা ১৫ মিনিটে হযরত শাহজালাল ছেড়ে যাবে। মদিনা থেকে বৃহস্পতিবারম শনি ও রবিবার রাত ২টা ৪৫মিনিটে ঢাকার উদ্দেশ্যে ছেড়ে আসবে।

এতদিন বাংলাদেশ থেকে মদিনায় কোন সরাসরি ফ্লাইট ছিল না। সৌদিয়া এক সময় ঢাকা থেকে সরাসরি মদিনায় ফ্লাইট চালাত। বছর কয়েক আগে সেটাও স্থগিত করা হয়। তারপর থেকে আর কোন এয়ারলাইন্স এ রুটে সরাসরি ফ্ল্ইাট অপারেট করছে না। এভিয়েশন বিশেষজ্ঞের মতে, ঢাকা-মদিনা রুটে বিপুলসংখ্যক যাত্রী আগেও ছিল, এখনও আছে। দিন দিন তা বাড়ছে। বিশেষ করে হজ ও ওমরাহ যাত্রীদের বিশাল চাহিদা রয়েছে এ রুটে।

কামরুল ইসলাম জানান, পুণ্য ভূমি মদিনায় যাত্রী পাওয়ারও যথেষ্ট যৌক্তিকতা রয়েছে। হজের সময় অনেক যাত্রী সরাসরি মদিনা যেতে চায়, আবার মদিনা থেকে সরাসরি ঢাকায় আসতে চায়। এমনকি ইন্দোনেশিয়া ও মালয়েশিয়া থেকে মদিনায় সরাসরি কোন ফ্লাই্ট চালু না থাকায় ও দুটো দেশের বিপুল সংখ্যক ওমরাহ যাত্রী ঢাকা হয়ে মদিনা যেতে পারবে। পাশাপাশি ঢাকা থেকে বিপুলসংখ্যক শ্রমিকও সরাসরি মদিনায় যেতে ইচ্ছুক। এ সব বিবেচনায় রুটটি বাণিজ্যিকভাবে লাভজনক হবে।