২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

চায়ের বিল চাওয়ায় পিতা-পুত্রকে পেটালেন ইউপি চেয়ারম্যান

স্টাফ রিপোর্টার, নীলফামারী ॥ ডিমলা উপজেলার সদর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান চায়ের দোকানি পিতা-পুত্রসহ তিনজনকে বেধড়ক পিটিয়েছে। তাদের স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

অভিযোগ মতে, ডিমলা সদর ইউপি চেয়ারম্যান রফিজুল ইসলামের কাছে দীর্ঘদিন ধরে প্রায় ৫ হাজার টাকার চায়ের বকেয়া বিল পান ডিমলা বাজারের ক্ষুদ্র চা দোকানি আব্দুর রউফ। বুধবার রাত আটটার দিকে ইউপি চেয়ারম্যান ওই দোকানে আরো ১০/১২ জনকে সাথে নিয়ে চা পান করেন। এ সময় চা দোকানি আব্দুর রউফ(৪০) ও তার পুত্র নয়ন(১৬) বকেয়া ও বর্তমান চায়ের বিল দাবি করে। এ ঘটনায় চেয়ারম্যান ও তার লোকজন চা দোকানি পিতা-পুত্রকে ইউনিয়ন পরিষদে ধরে নিয়ে গিয়ে বেধড়ক পিটিয়ে গুরুতর আহত করলে এলাকাবাসী তাদের উদ্ধার করে ডিমলা হাসপাতালে ভর্তি করে। এ ঘটনার এজাহার লিখে ডিমলা থানায় মামলা দায়েরের জন্য নিয়ে যাওয়ার পথে ইউপি চেয়ারম্যানসহ তার লোকজন তাকেও তুলে নিয়ে গিয়ে প্রকাশ্যে পেটালে সেও গুরুতর আহত হয়।

মানিকগঞ্জে ছাত্রলীগ নেতা

নিজস্ব সংবাদদাতা মানিকগঞ্জ থেকে জানান, সিগারেট নেয়ার টাকা চাওয়ায় বুধবার রাতে প্রকাশ্যে পান-সিগারেট দোকানি দানেজ হোসেনকে মারপিট করেছে সিংগাইর উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক রমিজ উদ্দীন ও তার লোকজন। তাকে সিংগাইর ঘোনাপাড়াস্থ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। সম্প্রতি বেশকিছু অটোরিক্সার ভাংচুরের দায়ে পদ থেকে সাময়িক বহিষ্কৃত হয়েছে রমিজ উদ্দীন।