২৪ অক্টোবর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

শাদ ও নাইজেরিয়ায় বোকো হারামের হামলায় নিহত ১৭

অনলাইন ডেস্ক ॥ জঙ্গি সংগঠন বোকো হারাম শাদের রাজধানীর একটি ব্যস্ত বাজারে শনিবার আত্মঘাতী বোমা হামলা চালিয়েছে। এতে ১৫ জন নিহত হয়েছে।

জঙ্গি সংগঠনটি এই নগরীতেই এর আগের একটি বোমা হামলার দায়িত্ব স্বীকারের মাত্র কয়েক দিন পর এ হামলা চালানো হল। ওই ঘটনায় ৩৮ জন প্রাণ হারায়।

এদিকে ন’জামেনায় এক লোক নারীর ছদ্মবেশে সম্পূর্ণ চেহারা ঢাকা বোরকা পরে এ হামলা চালায়। নাইজেরিয়ার বোর্নো রাজ্যের রাজধানী মাইদুগুরিতে এক বোমা হামলার পর এই হামলা চালানো হল। মাইদুগুরির ঘটনায় দুই পথচারী নিহত হয়।

স্থানীয় ও বেসামরিক মিলিশিয়া বাহিনীর এক সদস্য জানায়, শুক্রবার রাতে জঙ্গি সংগঠনটির যোদ্ধারা মাইদুগুরি থেকে প্রায় ১০০ কিলোমিটার (৬০মাইল) দূরে ন’গামদু গ্রামেও অভিযান চালায়। এ সময় তারা ১১ জনকে হত্যা করে। খবর এএফপি’র।

হামলাগুলো এই অঞ্চলে ইসলাপন্থী জঙ্গিদের হুমকির বিষয়টি তুলে ধরল।

যদিও কর্তৃপক্ষ সাম্প্রতিক সময়ে সামরিক সফলতার দাবি করেছে। এছাড়াও মাসের শেষে এই অঞ্চলে নতুন করে আঞ্চলিক বাহিনীর সৈন্যদের মোতায়েন করা হবে।

পুলিশের মহাপরিচালক তাহের এরদা বলেন, ন’জামেনায় নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা বাজারে প্রবেশ পথে হামলাকারীকে থামালে সে তার শরীরে বেঁধে রাখা বিস্ফোরকের বিস্ফোরণ ঘটায়।

মুসলিম প্রধান শাদের রাজধানীতে প্রথমবারের মতো বোকো হারাম সদস্যরা হামলা চালানোর পর গত মাসে মুখ ঢাকা বোরকা নিষিদ্ধ, নিরাপত্তা জোরদার ও নাইজেরিয়ায় জঙ্গিদের অবস্থান লক্ষ্য করে বোমা বর্ষণ করা হয়।

পুলিশের মুখপাত্র পল মাঙ্গা বলেন, শনিবারের এই হামলায় প্রাথমিকভাবে ১৫ জন নিহত ও ৮০ জন আহত হয়। আহতদের মধ্যে ৪ জনের অবস্থা গুরুতর।

তিনি আরো জানান, নিহতদের মধ্যে ৯ জন নারী ব্যাবসায়ী ও একজন পুলিশ কর্মকর্তা।

স্থানীয় সময় সকাল ৮টা ৪৫ মিনিটে (গ্রিনিচ মান সময়০৭৪৫) এই হামলার পর নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা রাজধানীর প্রাণকেন্দ্রে অবস্থিত ওই এলাকাটিকে ঘিরে রেখেছে।

পুলিশ জানায়, ‘বোকো হারাম’ এই হামলা চালিয়েছে। ‘এ ব্যাপারে কোন সন্দেহ নেই।’

শনিবার সকালে একটি স্কুটারে করে দুই বোমা হামলাকারী একটি ব্যস্ত বাস স্ট্যাশনে ঢোকার চেষ্টা করছিল। কিন্তু নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার হওয়ায় তাদের সে চেষ্টা ব্যর্থ হয় এবং পাশেই হামলা চালানো হয়।

যুক্তরাষ্ট্র ভিত্তিক এসআইটিই গোয়েন্দা সংস্থা জানায়, বোকো হারাম টুইটারের মাধ্যমে শাদ ও মাইদুগুরি হামলার দায়িত্ব স্বীকার করেছে।

প্রধানমন্ত্রী কালজেউবে পাহিমি দেউবেত এই হামলা সম্পর্কে আলোচনা করতে একটি সংকটকালিন বৈঠক ডেকেছেন।

ফ্রান্সের পররাষ্ট্রমন্ত্রী লরাঁ ফ্যাবিয়াস এই বোমা হামলাকে ‘জঘন্য’ আখ্যায়িত করেছেন। সূত্র: বাসস