২৩ জুলাই ২০১৫

আইএস টিকিয়ে রাখার পরিকল্পনা বাগদাদীর

ইসলামিক স্টেটের (আইএস) আত্মগোপনে থাকা নেতা আবু বকর আল-বাগদাদী সিরিয়া ও ইরাকে তার ঘনিষ্ঠ উপনেতা ও আঞ্চলিক কমান্ডারদের সংগঠনের পরবর্তী নেতা মনোনয়নে ব্যাপক ক্ষমতা প্রদান করেছেন। তিনি বা কোন শীর্ষস্থানীয় নেতা নিহত হলে লড়াই অব্যাহত রাখার বিষয়টি নিশ্চিত করার উদ্দেশ্যে এ ক্ষমতা প্রদানের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। আমেরিকান ও ইরাকী গোয়েন্দা কর্মকর্তারা এ কথা বলেছেন। কর্মকর্তারা বলেছেন, আইএস নেতা আল-বাগদাদী তার পরিষদ বা শূরা পরিষদকে এ কর্তৃত্ব প্রদান করেন। শূরা পরিষদে অন্তর্ভুক্ত রয়েছেন যুদ্ধ, অর্থ, ধর্ম ও অন্যান্য বিষয়ক মন্ত্রীরা। বাগদাদীর অধীন আইএস নেতৃত্ব গঠন করা হয়েছে প্রধানত দুটি গ্রুপ থেকে। একটি গ্রুপে রয়েছেন ইরাকে আল-কায়েদার প্রবীণ সদস্যবৃন্দ যারা মার্কিন বাহিনীর বিরুদ্ধে রণাঙ্গনে পরীক্ষিত জঙ্গী দক্ষতা নিয়ে বেঁচে আছেন এখনও তারা এবং অন্যটিতে রয়েছেন সাদ্দাম হোসেনের নেতৃত্বাধীন সাবেক বাথ পার্টির কর্মকর্তারা যাদের রয়েছে সাংগঠনিক, গোয়েন্দা ও অভ্যন্তরীণ নিরাপত্তায় বিশেষ জ্ঞান। এক কুর্দী কর্মকর্তা বলেছেন, স্বঘোষিত খলিফা বাগদাদী নিহত হলে কাকে তার স্থলাভিষিক্ত করা হবে এটা স্পষ্ট করা হয়নি। কিন্তু তিনি বলেছেন, আবু আলা আল-আফ্রির যে নেতা হওয়া সম্ভব নয়। কারণ, তিনি একজন জাতিগত তুর্কী। বাগদাদীর দাবি অনুযায়ী খলিফার পদটি নবী মোহাম্মদের কোরাইশন বংশোদ্ভূত কোন আরবের জন্য সংরক্ষিত থাকবে অবশ্যই। তবে অনেকের ধারণা আফ্রি বেঁচে আছেন এখনও। যুক্তরাষ্ট্র হন্যে হয়ে খুঁজছে বাগদাদীকে। তিনি এ বছর নিহত বা আহত হয়েছেন বলে যে গুঞ্জনের সৃষ্টি হয়েছিল তার অবসান হয়েছে। প্রতিরক্ষা মন্ত্রী এ্যাস্টন বি কার্টার এ মাসে সাংবাদিকদের বলেছেন, বাগদাদীর বিরুদ্ধে কোন আঘাতের সুযোগ এলে অবশ্য তা গ্রহণ করব আমরা। -ইন্টারন্যাশনাল নিউইয়র্ক টাইমস