১৬ ডিসেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

সেলফি তোলার খেসারত

সেলফি তোলার খেসারত

সেলফি তোলা খুব পছন্দ করেন ফ্যাসলার। প্রতিদিনের মতো স্মার্টফোন হাতে বাইরে যাচ্ছিলেন ফ্যাসলার। হঠাৎই মনে হলো একটি সেলফি তুলবেন। ‘এক্সক্লুসিভ’ সেলফি তুলতে তিনি পাশের ঝোপঝাড় থেকে শান্তশিষ্ট ভেবে একটা র‌্যাটল স্নেককে টেনে বের করে আনেন। এরপর তাকে হাতে জড়িয়ে একটি ‘পারফেক্ট’ সেলফি তুলতে বিভিন্ন ধরনের পোজ দিতে থাকেন।

তবে ফ্যাসলারের সেলফি তোলা মোটেই পছন্দ হয়নি র‌্যাটল স্নেকের। এতই বিরক্ত যে, সে দংশন করতে বাধ্য হয়েছে। আর তাতে দেড় লাখেরও বেশি মার্কিন ডলার চিকিৎসা বাবদ খরচ করতে হয়েছে ওই সেলফিবাজের। এ ঘটনা ঘটেছে যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়া অঙ্গরাজ্যের সান দিয়েগো শহরে।

সাধারণত খুব বেশি বিরক্ত না হলে অথবা হুমকির মুখে না পড়লে দংশন করে না র‌্যাটল স্নেক। আমেরিকা মহাদেশের বিষধর সাপ, যার লেজের সঞ্চালনে ঝুমঝুম শব্দ হয়, আক্রমণের আগেই লেজ নাড়িয়ে ঝুমঝুম শব্দ করে।

মহাবিরক্ত হয়ে সাপটি ফ্যাসলারের হাতে কামড় বসিয়ে দেয়। আর তাই এখন চিকিৎসার জন্য এক লাখ ৫৩ হাজার ডলারেরও কিছু বেশি। (বাংলাদেশী টাকায় এক কোটি ১৯ লাখ টাকার মতো) অর্থ খরচ করতে হবে ফ্যাসলারকে। সেলফিবাজ ফ্যাসলার বলেন, আমার পুরো শরীর কাঁপছিল। সাপের দংশন আমার পুরো শরীরকে কার্যত অচল করে দেয়। আমার জিহ্বা যেন মুখ থেকে বের হয়ে আসছিল, চোখ যেন আর আমার সঙ্গে থাকছিল না। আমার নিজেরও একটি পোষা র‌্যাটল স্নেক ছিল। কামড় খাওয়ার পর আমি সেটিকেও জঙ্গলে মুক্ত করে দিয়েছি।