২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

অবশেষে সামান্থার শিরোপা

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ ক্যারিয়ারের অষ্টম শিরোপা জিতলেন সামান্থা স্টোসার। রবিবার ইতালির ক্যারিন ন্যাপকে পরাজিত করে বেড গাস্টেইন ডব্লিউটিএ ওপেনে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করলেন তিনি। শিরোপা জয়ের লড়াইয়ে সাবেক ইউএস ওপেনের চ্যাম্পিয়ন স্টোসার ৭-৬ (৭/৪), ৪-৬ এবং ৭-৫ গেমে পরাজিত করেন ইতালির প্রতিভাবান খেলোয়াড় ন্যাপকে। চলতি মৌসুমে এটা তার দ্বিতীয় শিরোপা। এর আগে মে মাসে স্ট্র্যাসবার্গ ওপেনে ক্যারিয়ারের সপ্তম শিরোপা জয়ের স্বাদ পেয়েছিলেন। এক মাস বিরতির পর আবারও শিরোপা জয়ের হাসি হাসতে পেরে রোমাঞ্চিত স্টোসার। তার লক্ষ্য এখন ইউএস ওপেনে শিরোপা পুনরুদ্ধার করা।

বেড গাস্টেইন ডব্লিউটিএ ওপেনের ফাইনাল ম্যাচটি হওয়ার কথা ছিল শনিবার। কিন্তু অস্ট্রিয়াতে প্রচ- বৃষ্টির কারণে সেদিন আর ম্যাচটি হতে পারেনি। যে কারণে একদিন পর রবিবার অনুষ্ঠিত হয় ফাইনাল ম্যাচটি। আর শেষ পর্যন্ত প্রতিপক্ষকে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন হন স্টোসার। এরপর উচ্ছ্বসিত স্টোসার। এ বিষয়ে ম্যাচ শেষের সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, ‘আজকের ম্যাচটা খুবই কঠিন ছিল। তার বিপক্ষে প্রথম সেটে বেশ ভাল পারফর্ম করেছি আমি। কিন্তু দ্বিতীয় সেটে সেও ঘুরে দাঁড়ায়। কিন্তু তারপর আবারও ভাল করতে থাকি আমি। শেষ পর্যন্ত তিন নাম্বার সেটে আমিই জিতে নেই এবং শিরোপা নিজের শোকেসে তুলতে সক্ষম হই।’

পুরো টুর্নামেন্টেই বৃষ্টির রাজত্ব ছিল টেনিস কোর্টে। যে কারণে রবিবার একইদিনে দুটি ম্যাচ হয়। যা কষ্টসাধ্য বিষয়। প্রতিপক্ষও ছিল সময়ের সেরা দুই খেলোয়াড়। সেমিফাইনালে ন্যাপেরই স্বদেশী তারকা সারা ইরানির মুখোমুখি হয়েছিলেন স্টোসার। টুর্নামেন্টের শীর্ষ বাছাই হিসেবে ইরানিও ফেবারিটের তকমাটা গায়ে মাখিয়ে কোর্টে নেমেছিলেন। কিন্তু শেষ পর্যন্ত স্টোসারের সঙ্গে পেরে উঠতে পারেননি ইরানি। শেষ চারের লড়াইয়ে স্টোসার ৭-৬, ৪-৬ এবং ৭-৫ গেমে হারান ইতালিয়ান তারকাকে। অস্ট্রেলিয়ান এই তারকার বর্তমান বয়স ৩১। বলতে গেলে ক্যারিয়ারের গোধূলি বেলায় চলে এসেছেন তিনি। গত এক দশক ধরেই টেনিস বিশ্বের আলোচিত নাম স্টোসার। কিন্তু কখনই পাদপ্রদীপের আলোয় আসতে পারেননি তিনি। ২০১১ সালে ক্যারিয়ারের প্রথম গ্র্যান্ডসøাম টুর্নামেন্ট জিতেছিলেন অস্ট্রেলিয়ার এই টেনিস তারকা ইউএস ওপেনে। সেবার আমেরিকান টেনিস তারকা সেরেনা উইলিয়ামসকে পরাজিত করে ক্যারিয়ারের প্রথম মেজর শিরোপা নিজের শোকেসে তুলেন তিনি। আগামী মাসেই শুরু হবে মৌসুমের শেষ গ্র্যান্ডসøাম টুর্নামেন্ট ইউএস ওপেন। তাই গাস্টেইনে ডব্লিউটিএ ওপেন জেতায় স্বাভাবিকভাবে ফেবারিট হিসেবে ইউএস ওপেনের কোর্টে নামবেন তিনি। তবে চার বছর আগে যাকে হারিয়ে মেজর এই টুর্নামেন্টে চ্যাম্পিয়ন হয়েছিলেন স্টোসার। এবারও ফেবারিট সেই সেরেনা। বয়সে স্টোসারের চেয়ে সেরনার অনেক বেশি হলেও পারফর্মেন্সে উড়ছেন আমেরিকান টেনিসের জীবন্ত কিংবদন্তি। গত মৌসুমে এই ইউএস ওপেন জিতেই বছর শেষ করেছিলেন তিনি। এরপর চলতি মৌসুমের প্রথম তিন মেজর শিরোপা নিজের শোকেসে তুলেন সেরেনা। স্পর্শ করেন সেরেনা সøাম জয়ের রেকর্ড।