২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

গোপালগঞ্জে স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের পর হত্যা

নিজস্ব সংবাদদাতা, গোপালগঞ্জ॥ গোপালগঞ্জের মুকসুদপুরে ৭ম শ্রেণীর এক স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের পর হত্যা করা হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। নিহত ওই ছাত্রী মামাবাড়ি থেকে নিজ বাড়িতে ফেরার পথে এ ঘটনার শিকার হয়। সে মুকসুদপুর উপজেলার দিগনগর উচ্চ বিদ্যালয়ের ছাত্রী। মঙ্গলবার দুপুরে তার লাশ ময়না তদন্তের জন্য গোপালগঞ্জ সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়। সোমবার দুপুরে মুকসুদপুরের সর্দি গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পুলিশ চারজনকে আটক করেছে।

জানা যায়, ওইদিন সকালে স্কুলছাত্রীটি ফরিদপুর জেলার ভাঙ্গা থানার গঙ্গাধরদি গ্রামের মামাবাড়ি থেকে নিজ বাড়ি মুকসুদপুরের সর্দি গ্রামে আসছিল। দুপুরের মধ্যেও সে বাড়িতে না উপস্থিত না হওয়ায় তার বাবা-মা খুঁজতে বের হয়। এরপর বাড়ি থেকে প্রায় আঁধা-কিলোমিটার দূরে একটি পরিত্যাক্ত ভিটায় তার নগ্ন লাশ পাওয়া যায়। পুলিশ পরে খবর পেয়ে পুলিশ লাশটি উদ্ধার করে। মুকসুদপুরের সিন্দিয়াঘাট পুলিশ-ফাঁড়ির এসআই গিয়াস উদ্দিন জানিয়েছেন, তাকে ধর্ষণের পর হত্যা করা হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। ময়না তদন্তের জন্য লাশ মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পাশ্ববর্তী ফতেপট্টি গ্রামের চারজনকে আটক করা হয়েছে।