২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

নৌকাডুবে ও পানিতে পড়ে মা মেয়ে শিশুসহ ৮ জনের মৃত্যু

জনকণ্ঠ ডেস্ক ॥ ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইলে নৌকাডুবিতে মা ও মেয়েসহ ৪ জন এবং সিলেটে এক জনের মৃত্যু হয়েছে। এতে সরাইলে ঘটনায় নিখোঁজ রয়েছে ৬Ñ৭ জন। এদিকে, বরিশালে মাছ ধরতে গিয়ে এবং কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে পানিতে ডুবে দুই শিশুসহ চার জনের মৃত্যু হয়েছে। খবর স্টাফ রিপোর্টার ও নিজস্ব সংবাদদাতার।

জানা গেছে, বৃহস্পতিবার ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইলে ছেত্রা নদীতে নৌকাডুবে মা-মেয়েসহ ৪ জনের মর্মান্তিক মৃত্যু হয়েছে। এ ঘটনায় নিখোঁজ রয়েছে ৬Ñ৭ জন। স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান জানান, সকাল সাড়ে ৮টায় উপজেলার দুবাজাইল এলাকা থেকে শতাধিক যাত্রী নিয়ে একটি নৌকা অরুয়াইল যাবার পথে নৌকাটি দুবাজাইল ঘাট ছাড়ার পরই প্রচ- ঢেউয়ের কারণে নৌকাটি পানিতে তলিয়ে যায়। এ সময় যাত্রীরা সাঁতরিয়ে পাড়ে উঠতে পারলেও অন্তত ১০ যাত্রী পানিতে ডুবে যায়। পরে এলাকাবাসী মা-মেয়েসহ ৪ জনের লাশ উদ্ধার করে। মৃত ব্যক্তিরা হলোÑ উপজেলার অড়ুয়াইল ইউনিয়নের ডুবাজাইল গ্রামের মৃত কালা মিয়ার ছেলে ক্বারী আবদুল কাহার (৪৫), একই গ্রামের সিরাজ মিয়ার স্ত্রী ফাতেমা বেগম (৪৫) ও তার শিশু সন্তান শেফালী আক্তার (২) এবং শিরিনা আক্তার (৬)। নিখোঁজদের সন্ধানে এলাকাবাসী উদ্ধার কাজ চালিয়ে যাচ্ছে। খবর পেয়ে উপজেলা প্রশাসনের কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে নিহতদের দাফনের জন্য প্রত্যেককে পাঁচ হাজার টাকা করে অনুদান দিয়েছেন।

সিলেট ॥ সিলেটের বালাগঞ্জে নৌকা ডুবিতে ১ জনের মৃত্যু হয়েছে। ২ জনকে মুমূর্ষু অবস্থায় উদ্ধার করা হয়েছে। পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, বুধবার সকালে নতুন সুনামপুর গ্রামের ময়না মিয়ার তিন ছেলে ধান ভাঙ্গার জন্য নৌকা নিয়ে বালাগঞ্জ আসার সময় গোরাপুর হাওরে নৌকাডুবা নামক স্থানে ঝড়ো হাওয়ায় নৌকাটি ডুবে যায়। খবর পেয়ে বালাগঞ্জ থানা পুলিশ, ফায়ার সার্ভিস ও এলাকাবাসী তল্লাশি চালিয়ে সোনাফর মিয়া (৫৫), ফারুক মিয়াকে (৪০) মুমূর্ষু অবস্থায় উদ্ধার করেন। ওইদিন রাত সোয়া ৯টার দিকে সৌদি প্রবাসী মিসবাহ উদ্দিন নিমার আলীর (৪৫) লাশ উদ্ধার করা হয়।

বরিশাল ॥ খালে মাছ ধরতে গিয়ে পৃথক ঘটনায় পানিতে ডুবে রিয়াজুল ইসলাম খান (২৫) ও চাঁন মিয়া সরদার (৬০) নামের দু’জনের সলিল সমাধী হয়েছে। এ ঘটনায় ওই এলাকায় শোকের ছায়া নেমে আসে। ঘটনাটি ঘটেছে বৃহস্পতিবার দুপুরে জেলার বানারীপাড়া উপজেলার পশ্চিম বাইশারী ও আশুরাইল গ্রামে। জানা গেছে, পশ্চিম বাইশারী গ্রামের চাঁন মিয়া সরদার বাড়ির সামনের খালে মাছ ধরতে গিয়ে পানিতে ডুবে যান। পরে পরিবারের লোকজনে তাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসকেরা তাকে মৃত বলে ঘোষণা করেন। একইদিন উপজেলার চাখার ইউনিয়নের আশুরাইল গ্রামের রিয়াজুল ইসলাম খান (২৫) বাড়ির পার্শ্ববর্তী খালে মাছ ধরার জন্য পাতা জাল তুলতে গিয়ে জালে জড়িয়ে ডুবে যায়। স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে চিকিৎসকরা তাকেও মৃত ঘোষণা করেন।

দৌলতপুর, কুষ্টিয়া ॥ দৌলতপুরে পৃথক দুটি স্থানে পানিতে ডুবে আমির (৫) ও আখি (৬) নামে দুই শিশুর মৃত্যু হয়েছে। বৃহস্পতিবার বিকেলে দৌলতখালী ও রিফায়েতপুর খানপাড়া গ্রামে শিশু মৃত্যুর এ ঘটনা ঘটে।

নিহতদের পরিবার ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, ঘটনার দিন বিকেল ৫টার দিকে উপজেলার সদর ইউনিয়নের দৌলতখালী গ্রামের রেন্টু আলীর ছেলে আমির খেলতে গিয়ে বাড়ির পার্শ্ববর্তী পুকুরে পড়ে পানিতে ডুবে যায়। এ সময় প্রতিবেশী লোকজন ডুবন্ত শিশুটিকে পুকুর থেকে উদ্ধার করে দৌলতপুর হাসপাতালে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। অপরদিকে, একই দিন বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে রিফায়েতপুর ইউনিয়নের রিফায়েতপুর খানপাড়া গ্রামের আবুল কালাম আজাদের শিশু কন্যা আখি ও বাড়ির পার্শ্ববর্তী জলাশয়ে পড়ে ডুবে যায়। পরে তার লাশ ভেসে উঠলে এলাকাবাসী তাকে উদ্ধার করে দৌলতপুর হাসপাতালে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকেও মৃত ঘোষণা করেন। শিশু মৃত্যুর ঘটনায় এলাকাবাসীর মধ্যে শোকের ছায়া নেমে আসে।