২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

পঞ্চগড় ছিটমহলে রাষ্ট্রীয়ভাবে জাতীয় পতাকা উত্তোলন

স্টাফ রিপোর্টার, পঞ্চগড় ॥ ছিটমহল বিনিময়ের সময় গণনার কাউন্ট-ডাউনের শেষদিন বাঁধভাঙ্গা উল্লাসে মেতেছে পঞ্চগড়ের ৩৬ টি ছিটমহলের লোকজন। সব ছিটমহলেই যেন ঈদ উৎসব। প্রায় ছয় যুগ ধরে উন্নয়ন বঞ্চিত পশ্চাৎপদ এসব ছিটমহলের বাড়ি ও মেঠোপথগুলো যেন বর্ণিল সাজে সাজানো হয়েছে। বিশেষ করে সদর উপজেলার গারাতী ছিটমহলের প্রতিটি মুসলমান বাড়ির উঠোনে জ্বালানো হয়েছে ৬৮টি মোমবাতি এবং হিন্দু বাড়িতেও একইসংখ্যক প্রদীপ জ্বালানো হয়েছে। অন্ধকারাচ্ছন্ন জীবন থেকে আলোর পথে আসায় সন্ধ্যার পর পরই ছিটমহলের সড়কে মশাল জ্বালিয়ে আলোকিত করার পাশাপাশি ফোটানো হয়েছে পটকা, ওড়ানো হয়েছে বেলুন আর বাদ্য-বাজনার শব্দে গোটা ছিটমহলের পরিবেশ প্রকম্পিত হয়ে ওঠে। আকাশ প্রদীপ ও আতশবাজিতে নানা রঙে সাজিয়ে তোলা হয়েছে। দীর্ঘ ৬৮ বছরের অবরুদ্ধ জীবনের শেষ দিনটিকে স্মরণীয় করে রাখার জন্য আয়োজন করা হয়েছিল গ্রামীণ খেলাধুলা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও নাটক। বিদ্রোহী শিশু কিশোর থিয়েটারের আয়োজনে ছিটমহলে বসবাসকারী শিশু-কিশোরদের পরিবেশনায় মানবতার মহাকবি নামে একটি নাটক মঞ্চস্থ হয়। এছাড়াও রাতভর চলে বর্ণাঢ্য নানা অনুষ্ঠান। এসব অনুষ্ঠানমালা ছিটমহলের মানুষ ছাড়াও পাশ্ববর্তী বাংলাদেশ এলাকার হাজারো মানুষ মিলেমিশে উপভোগ করেছে।

আজ শনিবার সকাল ছ‘টায় রাষ্ট্রীয়ভাবে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করা হয়। ভারপ্রাপ্ত জেলা প্রশাসক শামছুল আযম ও পুলিশ সুপার গিয়াস উদ্দিন আহম্মদ সদর উপজেলার গারাতী ছিটমহলে আনুষ্ঠানিকভাবে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করেন। এ সময় সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসারসহ সরকারি কর্মকর্তা, স্থানীয় জনপ্রতিনিধিগণ উপস্থিত ছিলেন।