২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

কোন্ ‘বজরঙ্গি ভাইজান’ গীতাকে ভারতে ফিরিয়ে দেবে?

বাবা-মাকে খুঁজছে গীতা। ১৫ বছর আগে ট্রেন ধরে ভুল করে ভারত থেকে পাকিস্তানে চলে গিয়েছিল মূক-বধির মেয়েটি। সেই থেকে সেখানেই রয়েছে সে। এ যেন ভারতে সম্প্রতি মুক্তি পাওয়া সালমান খানের ছবি ‘বজরঙ্গি ভাইজান’এর গল্প। কেবল পথটুকু বিপরীত। এ মেয়েকে ফিরতে হবে পাকিস্তান থেকে ভারত।

১৫ বছর আগে লাহোর থেকে উদ্ধার করা হয় গীতাকে। একের পর এক হোম ঘুরে ২০১২ সালে তার ঠাঁই হয় ইদি ফাউন্ডেশনের হোমে। হিন্দিতে সে লিখতে পারে। তবে ইদিতে কেউ হিন্দি লেখা পড়তে পারে না। তাই কারও সঙ্গে মতামত বিনিময় করতে পারে না। গীতার বয়স এখন ২২। মাথায় জড়ানো থাকে দোপাট্টা। মন্দিরে পুজো দেয়। আর ইদির বাচ্চাদের সঙ্গে দিনের অনেকটা সময় কাটায়। ইশারায় জানিয়েছে, ভারতে তার সাত ভাই, পাঁচ বোন রয়েছে। রাগ করে সে বাড়ি ছেড়েছিল। সে এখন বিমানে চেপে বাড়ি ফিরতে চায়।

ইদি ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা বিলকিস ইদি জানিয়েছেন, তিন বছর আগে গীতার ভাইবোনের খোঁজে একবার ভারতে এসেছিলেন। তবে কোনও খোঁজ মেলেনি। এবার সেপ্টেম্বরে আবার তিনি ভারতে এসে খোঁজ নেবেন। প্রয়োজন হলে ভারতে তার পরিবারের খোঁজে প্রচার চালাবেন। ভারত সরকারের সঙ্গে যোগাযোগ করা হবে। ইদি ফাউন্ডেশনের ফয়সাল ইদি জানিয়েছেন, আমরা অনেকদিন ধরে তার পরিবার ও তার শহর খোঁজার চেষ্টা করছি, যেন তাকে আমরা ফেরত দিতে পারি। -আজকাল ও এক্সপ্রেস ট্রিবিউন