২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

দলে ফিরলেন ডি ভিলিয়ার্স

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ ঘরের মাটিতে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজ দিয়ে আবার দলে ফিরলেন দক্ষিণ আফ্রিকা ওয়ানডে অধিনায়ক এবি ডি ভিলিয়ার্স। সন্তান জন্মের সময় স্ত্রীর পাশে থাকতে বাংলাদেশ সফরের টেস্ট দলে ছিলেন না তিনি। ওয়ানডে দলে থাকলেও প্রথম ম্যাচে নিষেধাজ্ঞা থাকায় বাকি দুই ম্যাচ না খেলেই দেশে ফিরে গিয়েছিলেন সময়ের অন্যতমসেরা এই ব্যাটসম্যান। ওই দুই ম্যাচে হেরে সিরিজ খুইয়েছিল তার পরিবর্তে নেতৃত্ব দেয়া হাশিম আমলার দক্ষিণ আফ্রিকা। ভারত সফরের আগে এবার ঘরের মাটিতে কিউইদের সঙ্গে গুরুত্বপূর্ণ লড়াই দিয়ে মাঠে ফিরতে যাচ্ছেন তিনি।

বাংলাদেশ সফরে ওয়ানডে সিরিজে হারের লজ্জায় ডোবে বিশ্ব ক্রিকেটের পরাশক্তি দক্ষিণ আফ্রিকা। টাইগার তোপে যখন ধুঁকছিলেন প্রোটিয়া ব্যাটসম্যানরা, দলের সবচেয়ে বড় ব্যাটিং তারকা তখন ছিলেন ক্রিকেট থেকে অনেক দূরে, স্বপ্নময় এক ভুবনে। প্রথমবার বাবা হওয়ার অতুলনীয় স্বাদ পেয়েছেন এবি ডি ভিলিয়ার্স। ছেলে সন্তনের জন্ম দিয়েছেন ডি ভিলিয়ার্সের স্ত্রী ড্যানিয়েল ডি ভিলিয়ার্স। পরিবার-আত্মীয় স্বজনের মধ্যে দারুণ এক উৎসবের আমেজ বয়ে যায়। ডি ভিলিয়ার্সের বাবা হওয়ার খবর ও সন্তানের ছবি অনলাইনে সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে প্রকাশ করেন ড্যানিয়েলের বাবা জন সোয়ার্ট। ফেসবুক পাতায় ছবি দিয়ে সোয়ার্ট লেখেন, ‘আজ আমি নানা হয়েছি। দুপুর ১২.০১-এ জন্ম নিয়েছে আব্রাহাম বেঞ্জামিন ডি ভিলিয়ার্স (৩)। দারুণ দেখতে ছেলেটি, স্বাস্থ্য ভাল।’

পরে ক্রিকেট দক্ষিণ আফ্রিকার ফেসবুক পাতায়ও জানানো হয় এই সু-খবর। মা ও ছেলে সুস্থ আছে জানিয়ে উচ্ছ্বসিত ডি ভিলিয়ার্স বলেছেন, ‘উই অল ফিল ভেরি বেসড এ্যান্ড গ্রেটফুল।’ ডি ভিলিয়ার্সের বাবার নাম আব্রাহাম বেঞ্জামিন ডি ভিলিয়ার্স। তার নিজের নামও তাই; ছেলের নামও রাখলেন একই। সন্তান জন্মের সময় স্ত্রীর পাশে থাকার জন্যই বাংলাদেশ সফরে টেস্ট দল থেকে অব্যাহতি দেয়া হয়েছিল ডি ভিলিয়ার্সকে। ওয়ানডেতে ছিলেন। তবে বিশ্বকাপে নিজের শেষ ম্যাচে সেøা-ওভার রেটের জন্য প্রথম ম্যাচে নিষেধাজ্ঞা থাকায় পরে পুরো সিরিজ থেকেই বিশ্রাম দেয়া হয় ওয়ানডে অধিনায়ককে। টি২০ খেলেই তাই বাংলাদেশ থেকে দেশে ফিরে যান টেস্ট র‌্যাঙ্কিংয়ের দুইয়ে আর ওয়ানডে র‌্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষে থাকা এই ব্যাটসম্যান।

কিউদের বিপক্ষে সিরিজের জন্য ওয়ানডে ও টি২০ দল ঘোষণা করেছেন প্রোটিয়া নির্বাচকরা। তিন ম্যাচের ওয়ানডেতে খেলছেন না দুই গুরুত্বপূর্ণ সদস্য অলরাউন্ডার জেপি ডুমিনি ও পেসার মরনে মরকেল। ওই সময় ব্যক্তিগত ছুটিতে থাকছেন তারা। তবে খেলবেন টি২০তে। ফলে দলভুক্ত করা হয়েছে অলরাউন্ডার ডেভিড ওয়াইজকে। পুনরায় ডাক পেয়েছেন উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান মরনে ভ্যান উইকও। দক্ষিণ আফ্রিকা ‘এ’ দলের হয়ে বর্তমানে ভারত সফরে থাকায় নেই নিয়মিত উইকেটরক্ষক কুইন্টন ডি’কক। বর্তমানে জিম্বাবুইয়ে সিরিজ খেলা নিউজিল্যান্ড দক্ষিণ আফ্রিকায় দুই টি২০ ও তিন ম্যাচের ওয়ানডে খেলবে। ১৪ আগস্ট ডারবানে প্রথম টি২০ দিয়ে শুরু ময়দানী লড়াই। এই সিরিজ শেষে ২৯ সেপ্টেম্বর থেকে ৭ ডিসেম্বরÑ তিন মাসেরও দীর্ঘ ভারত সফরে দুই প্রস্তুতি, তিন টি২০, পাঁচ ওয়ানডে ও চার টেস্টের বিশাল দ্বৈরথ।

ওই সফরেই নিজের ঐতিহাসিক শততম টেস্ট ম্যাচ খেলবেন ডি ভিলিয়ার্স। ১৪ নবেম্বর চার ম্যাচ সিরিজের দ্বিতীয় টেস্ট হবে ব্যাঙ্গালুরুতে, সব ঠিক থাকলে সেটিই হবে ডি ভিলিয়ার্সের শততম টেস্ট। তার আগে মোহালিতে সাদা পোশাকে নিজের ৯৯ নম্বর ম্যাচ খেলবেন দক্ষিণ আফ্রিকার ওয়ানডে অধিনায়ক। গুরুত্বপূর্ণ ওই সফর সামনে রেখে ঘরের মাটিতে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে স্বল্পদৈর্ঘের এই লড়াই দিয়ে সর্বোচ্চ প্রস্তুতিটা সেরে নিতে চাইবেন ডি ভিলিয়ার্স।

দক্ষিণ আফ্রিকা ওয়ানডে দল ॥ এবি ডি ভিলিয়ার্স (অধিনায়ক), কাইল এ্যাবট, হাশিম আমলা, ফারহান বিহারদিয়ান, ফাফ ডুপ্লেসিস, ইমরান তাহির, ডেভিড মিলার, এ্যারন ফ্যাঙ্গিশো, ভারনন ফিল্যান্ডার, কাগিসো রাবাদা, রাইলি রুশো, ডেল স্টেইন, মরনে ভ্যান উইক (উইকেটরক্ষক) ও ডেভিড ওয়াইজ।

দক্ষিণ আফ্রিকা টি২০ দল ॥ ফাফ ডুপ্লেসিস (অধিনায়ক), এ্যাবট, আমলা, বিহারদিয়ান, ডি ভিলিয়ার্স, ডুমিনি, এডি লি, মিলার, মরনে মরকেল, ফ্যাঙ্গিশো, রাবাদা, রুশো, ভ্যান উইক (উইকেটরক্ষক) ও ওয়াইজ।