২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে কটুক্তি ॥ জাবি শিক্ষার্থী আটক

জাবি সংবাদদাতা॥ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে নিয়ে কটুক্তি করায় জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের এক শিক্ষার্থীকে আটক করে আশুলিয়া পুলিশের কাছে সোপর্দ করেছে জাবি প্রশাসন। আটককৃত শিক্ষার্থীর নাম শামসুল আলম বাবু (সরকার ও রাজনীতি বিভাগ, ৪১ তম ব্যাচ)। সে বিশ্ববিদ্যালয়ের মওলানা ভাসানী হলের আবাসিক ছাত্র।

জানা যায়, বঙ্গবন্ধুর অসমাপ্ত আত্মজীবনী নিয়ে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি আল আমিন সেতুর লেখা একটি নিবন্ধ জাতীয় দৈনিকে প্রকাশিত হয়। সাংগঠনিক সম্পাদক মুরশিদুর রহমান আকন্দ লেখাটি ফেসবুকে শেয়ার করলে করিম মামু নামের একটি আইডি থেকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে নিয়ে কটুক্তি করে মন্তব্য করেন বাবু। তার মন্তব্যটি ছিলো, “ভাই ভালো লিখেছেন। বইটা পড়েছি। একটা সমস্যা হলো শেখ হাসিনা এমন কোন ভালো মানুষ হয় নাই যে তার কাছে আল্লাহর অভয় বাণী আসবে।” পরে বুধবার বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সাংগাঠনিক সম্পাদক মুরশিদুর রহমান ও সহ সভাপতি আল আমিন সেতু তাকে আটক করে প্রশাসনের হাতে তুলে দেয়। একই সাথে তার বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দিয়ে তার বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নিতে প্রশাসনকে অনুরোধ করেন তারা। পরে প্রশাসন রাত সাড়ে ১১টার দিকে বাবুকে আশুলিয়া পুলিশের হাতে তুলে দেয়। বাবু এর আগেও সরকারকে নিয়ে ফেসবুকে নানা ধরণের মন্তব্য করেছে বলে অভিযোগ রয়েছে।

সাংগাঠনিক সম্পাদক মুরশিদুর রহমান বলেন, মো. করিম মামু নামের ফেসবুক আইডি থেকে কটুক্তি করে বাবু। পরে তার আইডির মিউচুয়াল ফ্রেন্ডের সহায়তায় সনাক্ত করে তাকে আমরা বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের হাতে তুলে দেই ।

আশুলিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোস্তফা কামাল বলেন, বাবুর বিরুদ্ধে তথ্যপ্রযুক্তি আইনে মামলা করা হবে।

কটুক্তির বিষয়ে অভিযুক্ত শিক্ষার্থী শামসুল আলম বাবু বলেন, ধর্মীয় দৃষ্টিকোণ থেকে আমি এমন মন্তব্য করেছিলাম। কারণ আমি জেনেছি যে, নবী রাসুলরা ছাড়া আর কারো কাছে আল্লাহর বাণী আসে না। কিন্তু এটা কাউকে আঘাত করবে তা আমি ভাবিনি। আমি ভুল করেছি , এজন্য আমি ক্ষমা চাই।