২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

খিলগাঁও থেকে দুই মেয়েসহ মা গ্রেফতার

  • মানবপাচারের অভিযোগ

স্টাফ রিপোর্টার ॥ রাজধানীর খিলগাঁওয়ে মানবপাচারে জড়িত থাকার অভিযোগে একই পরিবারের তিন নারীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। এ সময় পাচারকারীদের হাত থেকে মৌসুমি এবং শাবনুর নামের দুই নারীকে উদ্ধার করা হয়। গ্রেফতারকৃতরা হচ্ছে- সাজেদা বেগম (৪৫) ও তার দুই মেয়ে তাসলিমা আক্তার (২০) ও জেসমিন আক্তার (২৫)। এদিকে একই থানা এলাকায় ডিবি পরিচয় দিয়ে প্রতারণার অভিযোগে দুই নারীকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তাদের কাছ থেকে অপহৃত এক ব্যক্তিকে উদ্ধার করা হয়।

খিলগাঁও থানার ওসি মোস্তাফিজুর রহমান জানান, বৃহস্পতিবার রাতে খিলগাঁওয়ের নন্দীপাড়ার একটি বাড়ি থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়। তিনি জানান, চার বছর ধরে তারা গ্রামে গ্রামে গিয়ে মেয়েদের চাকরির প্রলোভন দেখিয়ে ভারতে পাচার করে আসছিল। ওসি আরও জানান, একই রাতে রাজধানীর খিলগাঁওয়ে গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি) পরিচয় দিয়ে প্রতারণার অভিযোগে মোসাম্মত রুবি ও মোসাম্মত সালমা নামে দুই নারীকে গ্রেফতার করা হয়। উত্তর গোড়ানের ২২৮ নম্বর বাসা থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়। তিনি জানান, গ্রেফতারকৃতরা মনির হোসেন নামে একজনকে একটি ঘরে আটক রেখে এক লাখ টাকা দাবি করেন। এ ঘটনায় মনিরের পরিবার থানায় অভিযোগ করলে পুলিশ অভিযান চালিয়ে অপহৃত মনিরকে উদ্ধার করে। এ সময় রুবি ও সালমাকে উদ্ধার করা হয়। ওসি মুস্তাফিজ ভুইয়া জানান, মনিরের কাছ থেকে ৫০ হাজার টাকা নিয়ে যায় ভুয়া ডিবি পরিচয়ে ওই দুই নারী। আটকের পর তাদের তল্লাশি করলে ৪ হাজার টাকা পাওয়া যায়। অপরাধী চক্রের মূল হোতা খলিলকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।