২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

সবার জন্য চ্যালেঞ্জ ছুড়ে দিলেন মাইকেল ফেলপস

সবার জন্য চ্যালেঞ্জ ছুড়ে দিলেন মাইকেল ফেলপস

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ বাটারফ্লাই ইভেন্টের অন্যতম সেরা হিসেবে নিজেকে অনেক আগেই প্রতিষ্ঠিত করেছেন। এ ইভেন্টে অলিম্পিকে জেতা ১৮ স্বর্ণের মধ্যে পাঁচটি আর বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপস আসরে জেতা ২৬ স্বর্ণের মধ্যে আটটি এসেছে। সে কারণেই তাঁর নাম হয়ে গেছে ‘ফ্লাইং ফিশ’। কিন্তু যুক্তরাষ্ট্রের কিংবদন্তি সাঁতারু মাইকেল ফেলপস এবার রাশিয়ার কাজানে চলমান বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপস আসরে অংশ নিতে পারেননি মদ্যপ অবস্থায় গাড়ি চালানোয় নিষেধাজ্ঞার কারণে। দর্শক হয়ে দেখেছেন অন্যতম প্রতিপক্ষ হাঙ্গেরির লাজলো সিসেহকে স্বর্ণপদক জিততে। তখন থেকেই টগবগ করে ফুটছিলেন ফেলপস। আগামী বছর রিও ডি জেনিরো অলিম্পিকে স্বর্ণটা জিততে চান তিনিই। পুলে ফিরেই চ্যালেঞ্জ ছুড়ে দিলেন। ইউএস চ্যাম্পিয়ননশিপস সাঁতারে ২০০ মিটার ফ্লাইয়ে বছরের সেরা টাইমিং গড়ে জিতেছেন তিনি। সিসেহ বিশ্ব আসরে এবার যে টাইমিং গড়েছেন তার চেয়েও কম সময় নিয়েছেন ফেলপস।

কাজানে বিশ্ব আসরের ২০০ মিটার বাটারফ্লাইয়ে অবশেষে সাফল্য পেয়েছেন হাঙ্গেরির সিসেহ। ১০ বছর পর আবারও বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপসে তিনি স্বর্ণ জয় করেন এর মাধ্যমে। তিনি ১ মিনিট ৫৩.৪৮ সেকেন্ড সময় নিয়ে স্বর্ণ জয় করেন। এবার ফেলপসের অনুপস্থিতিই যে তাঁর পক্ষে ভাগ্যের শিকেটা ছিঁড়ে দিয়েছে। চরম প্রতিপক্ষ সিসেহকে দেখে দারুণ প্রশংসাও করেছিলেন ফেলপস। সে সময় আক্ষেপ ভরে বলেছিলেন আগামী বছর রিও-তে আমিও কিছু করতে পারব। গত সেপ্টেম্বর থেকে পুলের বাইরে ফেলপস। ক্যারিয়ারে টানা দ্বিতীয়বারের মতো মদ্যপ অবস্থায় গতিসীমা অতিক্রম করে গাড়ি চালিয়েছিলেন। সেজন্য তাঁকে মাদকাসক্তি নিয়ন্ত্রণ সংস্থায় চিকিৎসা নিতে বাধ্য করা হয়েছে এবং এবার বিশ্ব সাঁতারে প্রতিযোগিতায় নামতে দেয়া হয়নি। কিন্তু ঠিকই নিজেকে মেলে ধরলেন। বিরতিও তাঁর গতিটাকে কমাতে পারেনি সেটাই দেখিয়ে দিলেন জাতীয় সাঁতার চ্যাম্পিয়নশিপসে।

লন্ডনে ২০১২ সালের অলিম্পিক শেষেই অবসরে গিয়েছিলেন ফেলপস। কিন্তু দুই বছর পূর্ণ হওয়ার আগেই অবসর ভেঙ্গে আবার ফেরার ঘোষণা দেন। অনেক পরিশ্রম এবং বিপত্তি পেরিয়ে অবশেষে গত বছর প্যান প্যাসিফিক সাঁতারে নিজেকে মেলে ধরেন তিনি। ব্যক্তিগত দোষে বিশ্ব সাঁতারে এবার অংশ নিতে পারলেন না। কিন্তু রিও অলিম্পিকের জন্য এখনও এক বছর সময় পাবেন নিজেকে প্রস্তুত করার। এই এক বছরে যে আরও গতিময় হয়ে উঠবেন নিয়মিত অনুশীলনে সেটারই প্রদর্শনী দেখালেন। ২০০ মিটার বাটারফ্লাইয়ে ১ মিনিট ৫২.৯৪ সেকেন্ড সময় নিয়ে শেষ করেছেন এবার জাতীয় চ্যাম্পিয়নশিপস সাঁতারে। এবার বিশ্বচ্যাম্পিয়ন হওয়া সিসেহর গড়া টাইমিংয়ের চেয়ে এটি ০.৫৪ সেকেন্ড কম। তার মানে রিও অলিম্পিকের জন্য প্রতিপক্ষদের চ্যালেঞ্জ জানিয়েই দিলেন ২০০৯ সালে ১ মিনিট ৫১.৫১ সেকেন্ড টাইমিংয়ে বিশ্বরেকর্ড গড়া ফেলপস।