১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

অরণ্যে অদ্ভুত আলো

অরণ্যে অদ্ভুত আলো

অরণ্যের গাছপালা থেকে যে আলো বিচ্ছুরণ হতে পারে এমনটা না দেখলে কেউ কল্পনা করতে পারেনি। কিন্তু ভারতের মহারাষ্ট্রের ভিমশংকর ওয়াইল্ডলাইফ রিজার্ভে রয়েছে তেমনই একটি বনভূমি, যেখানে অদ্ভুত আলো বিচ্ছুরিত হয় উদ্ভিদ থেকে। তবে বনটির যে বিষয়টি সবচেয়ে অদ্ভুত তা হলো জ্বলজ্বলে উদ্ভিদের সমাহার। বনের বেশ কিছু গাছের রং অদ্ভুত সবুজ। এমনকি কিছু উদ্ভিদ থেকে রাতেও অদ্ভুত সবুজ আলো বিচ্ছুরিত হয়।

মুম্বাই থেকে প্রায় ১০০ কিলোমিটার পূর্বে এ ভিমশংকর ওয়াইল্ডলাইফ রিজার্ভের অবস্থান। ওয়েস্টার্ন ঘাটের এ এলাকাতে রয়েছে পাহাড় আর উঁচুনিচু বনভূমি। রয়েছে নানা ধরনের সবুজের সমারোহ। কোথাও হালকা সবুজ, কোথাও গাঢ় সবুজ, কোথাওবা সেই অদ্ভুত আলো বিচ্ছুরক সবুজ।

ইউনেস্কো ঘোষিত অন্যতম ওয়ার্ল্ড হেরিটেজ সাইট হিসেবে ওয়েস্টার্ন ঘাটের এ এলাকাটি স্বীকৃতি পেয়েছে। এটি বিশ্বের অন্যতম রেইন ফরেস্ট হিসেবেও বিখ্যাত। এখানে বাঘ, চিতাবাঘ, কালো প্যান্থার ও বন্য হাতি রয়েছে।

বর্ষা মৌসুমে বিশেষ করে অক্টোবর মাসে এই রেইন ফরেস্টে জন্মায় একধরনের ফাঙ্গাস। ফাঙ্গাসটি যেসব উদ্ভিদের কাণ্ডে বা বাকলে জন্মায় সেগুলোকে অন্ধকারেও জ্বলজ্বল করতে দেখা যায়।

অন্য বনভূমিতে এ ধরনের দৃশ্য দেখা যায় না কেন? এ প্রসঙ্গে গবেষকরা জানাচ্ছেন, উজ্জ্বল এ ফাঙ্গাসটি জন্মানোর জন্য প্রয়োজন নির্দিষ্ট তাপমাত্রা ও আবহাওয়া। এছাড়া নির্দিষ্ট মাত্রার আর্দ্রতাও খুবই প্রয়োজনীয়। এ বনভূমিতে এসব বিষয় একত্রিত হওয়ার কারণেই উজ্জ্বল নয়নাভিরাম এ দৃশ্য দেখা যায়।

সূত্র: ইন্টারনেট