২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত দিলে আইনী ব্যবস্থা ॥ স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

স্টাফ রিপোর্টার ॥ ব্লগে বা অন্য কোন মাধ্যমে ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত দিলে দেশীয় আইনে ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল। মঙ্গলবার গেন্ডারিয়ায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতরের ঢাকা আঞ্চলিক কার্যালয় উদ্বোধন শেষে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা জানান।

মন্ত্রী বলেন, ব্লগে বা অন্য কোন মাধ্যমে ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত দেয়া যাবে না। দিলে দেশীয় আইনে ব্যবস্থা নেয়া হবে। তিনি বলেন, ব্লগার নীলাদ্রী চট্টোপাধ্যায় (নিলয়) হত্যাকা-ের যথেষ্ট প্রমাণ ও ক্লু আমাদের হাতে আছে। আমরা অনুমান-নির্ভর কোন কিছু করতে চাই না। সব তথ্য যাচাই করে আসল অপরাধী ধরার চেষ্টা করছি। নিলয় যে থানায় জিডি করতে গিয়েছিলেন, সে থানার ওসি জিডি না নিয়ে তাকে বিদেশে চলে যেতে বলেছিলেন বলে পুলিশের তদন্তে প্রমাণিত হয়েছে। তারপরও কোন খুঁটির জোরে তিনি স্বপদে বহাল রয়েছেন’- সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, যদি এমন কিছু প্রমাণ হয়ে থাকে, তাহলে আমরা ব্যবস্থা নেব।

এর আগে, মন্ত্রী মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতরের ঢাকা আঞ্চলিক কার্যালয় উদ্বোধন করে আলোচনা সভায় অংশ নেন। সভায় তিনি বলেন, শুধু আইন-শৃঙ্খলা রক্ষা বাহিনী দিয়ে মাদক নিয়ন্ত্রণ সম্ভব নয়। এজন্য সমাজের সর্বস্তরের মানুষকে এগিয়ে আসতে হবে।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, আমাদের দেশে মাদক তৈরি হয় না। তৈরি হয়, ভারত-মিয়ানমারে। সেখান থেকে সীমান্ত এলাকা দিয়ে আমাদের দেশে আসে। এই পথ বন্ধ করতে আমরা ইতোমধ্যে ভারত সরকারের সঙ্গে চুক্তি করেছি। মিয়ানমারের সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিজিপির সঙ্গেও আমাদের কথা হয়েছে। চেষ্টা করছি সব ধরনের মাদক প্রবেশ বন্ধ করতে। আমরা চাই, সমাজে যেন আর কোন ঐশী তৈরি না হয়। আর কোন মা-বাবা যেন না বলে, ‘আমার ছেলেমেয়েকে জেলে দেন’।

আসাদুজ্জামান খাঁন বলেন, আমরা ২০২১ সালে মধ্যআয়ের এবং ২০৪১ সালে উন্নত আয়ের বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠার যে রূপকল্প নিয়েছি, সেটা বাস্তবায়নে সোনার ছেলেদের মাদকের হাত থেকে রক্ষা করতে হবে। এজন্য মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতরের পরিদর্শকদের স্বল্প অস্ত্রে সজ্জিত করব। তার আগে তাদের ট্রেনিংয়ের জন্য একটা একাডেমি করে দিতে চাই।

মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতরের মহাপরিচালক বজলুর রহমানের সভাপতিত্বে এবং ঢাকা মেট্রো অঞ্চলের সহকারী পরিচালক মানজুরুল ইসলামের সঞ্চালনায় সভায় আরও বক্তব্য রাখেন সংসদ সদস্য কাজী ফিরোজ রশীদ, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব আবু হেনা মোঃ রহমাতুল মুনিম, মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক আমির হোসেন, পুলিশের ওয়ারী জোনের উপ-কমিশনার (ডিসি) সৈয়দ নূরুল ইসলাম, গোলাম কিবরিয়া প্রমুখ।