২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

ঢাবি ছাত্রী তুষ্টির ওপর নির্যাতনের মামলার কার্যক্রম হাইকোর্টে স্থগিত

স্টাফ রিপোর্টার ॥ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রী নুসরাত জাহান তুষ্টির ওপর নির্যাতনের ঘটনায় স্বামী মেজর নাজির উদ্দিনের বিচার কোর্ট মার্শালে করার জন্য নথি চেয়ে সেনাবাহিনীর দেয়া চিঠির কার্যক্রম স্থগিত করেছে হাইকোর্ট। বুধবার হাইকোর্টের বিচারপতি মির্জা হোসেইন হায়দার ও বিচারপতি একেএম জহিরুল হকের সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চ এই আদেশ দেয়। একই সঙ্গে নারী নির্যাতন আইনে করা অভিযোগের বিচার কোর্ট মার্শালে চলতে পারে কি না, এমন প্রশ্ন নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত মামলার কার্যক্রমও স্থগিত করেছে আদালত।

তুষ্টির বাবা বাংলাদেশ কৃষি ব্যাংকের অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ নূরুল ইসলাম ভূঁইয়ার করা এক রিট আবেদনের প্রাথমিক শুনানি করে হাইকোর্ট বেঞ্চ রুলসহ এই স্থগিতাদেশ দেয়। আবেদনকারীর আইনজীবী অনীক আর হক আদেশের পর বলেন, যতক্ষণ এই আইনগত প্রশ্নের জটিলতার অবসান না হচ্ছে, ততক্ষণ মামলার কার্যক্রম ও চিঠির কার্যকারিতা স্থগিত থাকছে।

হাইকোর্ট একই সঙ্গে রুলও জারি করেছে, রুলে নারী ও শিশু নির্যাতন আদালতের নথি হস্তান্তরের জন্য পাঠানো সেনাবাহিনীর চিঠি কেন বেআইনী ঘোষণা করা হবে না তা জানতে চেয়েছে। আগামী চার সপ্তাহের মধ্যে প্রতিরক্ষা সচিব, আইন সচিব, এরিয়া কামান্ডার, সেনাপ্রধান, টাঙ্গাইল নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক এবং সেনা দপ্তরের জাজ এ্যাডভোকেট জেনারেলকে রুলের জবাব দিতে বলা হয়েছে।

এ সময় আদালতে আবেদনের পক্ষে শুনানি করেন ব্যারিস্টার অনীক আর হক, সঙ্গে ছিলেন এ্যাডভোকেট নাসরিন আক্তার। রাষ্ট্রপক্ষে শুনানি করেন ডেপুটি এ্যাটর্নি জেনারেল আলামিন সরকার। উল্লেখ্য, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের এমবিএ’র শিক্ষার্থী তুষ্টিকে যৌতুকের দাবিতে নির্যাতনের অভিযোগে স্বামী মেজর নাজির উদ্দিনের বিরুদ্ধে গত ২ এপ্রিল টাঙ্গাইলের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালে একটি মামলা হয়।