২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

কুমিল্লায় গুলিবিদ্ধ শিশু হৃদয়ের দেহে সফল অস্ত্রোপচার ॥ দুই আসামি গ্রেফতা

নিজস্ব সংবাদদাতা, কুমিল্লা, ১৭ আগস্ট ॥ কুমিল্লায় শিশু তানভীর হাসান হৃদয়ের বাঁ হাতে অস্ত্রোপচার করে গুলি বের করা হয়েছে। রবিবার রাতে এ অস্ত্রোপচার করা হয়। ঘটনার পর সোমবার সন্ধ্যায় মামলার প্রধান আসামি সন্ত্রাসী নাজিমের ভাই নাছির ও নাজিমের সহযোগী পিন্টু কুমার দাসকে গ্রেফতার করেছে কোতোয়ালি মডেল থানা পুলিশ।

জানা গেছে, নগরীর শুভপুর এলাকায় রবিবার সকালে দুই গ্রুপে সংঘর্ষ ও গোলাগুলির ঘটনা ঘটে। এ সময় এক গ্রুপের আনোয়ার নামের এক সন্ত্রাসী দৌড়ে স্থানীয় আরিফ মিয়ার বাড়িতে ঢুকে পড়ে। প্রতিপক্ষের নিজাম তাকে লক্ষ্য করে গুলি ছুড়লে তা লক্ষ্যভ্রষ্ট হয়ে মক্তবে আরবী পড়তে যাওয়ার জন্য প্রস্তুত হয়ে ঘরের সামনে দাঁড়িয়ে থাকা শিশু হৃদয়ের পেটে ও বাঁ হাতে গুলিবিদ্ধ হয়। পরে তাকে কুমিল্লা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। রবিবার রাত ১২টার দিকে শিশু হৃদয়ের বাঁ হাতে অস্ত্রোপচার করেন কুমিল্লা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের ক্যাজুয়েলিটি বিভাগের ডাঃ রেজাউর রশিদ। তিনি জানান, ওই শিশুর বাঁ হাতে বিদ্ধ গুলিটি সফলভাবে বের করা হয়েছে। এদিকে কুমিল্লার জেলা প্রশাসক মোঃ হাসানুজ্জামান কল্লোল গুলিবিদ্ধ শিশু হৃদয়কে দেখতে বেলা সাড়ে ১১টার দিকে কুমিল্লা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে যান। এসময় তিনি সংশ্লিষ্ট চিকিৎসকদের কাছে তার চিকিৎসার খোঁজখবর নেন এবং তার চিকিৎসার জন্য ১০ হাজার টাকা আর্থিক সহায়তা দেন। পুলিশ সুপার মোঃ শাহ আবিদ হোসেন জানান, পুলিশ অভিযান চালিয়ে প্রধান আসামি নাজিমের ভাই নাছিরকে শুভপুর এলাকা থেকে এবং নাজিমের সহযোগী সন্ত্রাসী পিন্টু কুমার দাসকে আদর্শ সদর উপজেলার পাঁচথুবী ইউনিয়নের নমসুদপাড়া এলাকা থেকে গ্রেফতার করেছে। পুলিশ তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করছে এবং নাজিমকে ধরতে পুলিশের অভিযান অব্যাহত আছে। অন্যদিকে চাঁদপুরে কচুয়ায় মানববন্ধন চলাকালে শিক্ষার্থীদের ওপর হামলার ঘটনায় আহত ৫ হাজার টাকা করে (১০ হাজার) আর্থিক সহায়তা দেন তিনি।

নির্বাচিত সংবাদ