২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

বিশ্বের কোথাও সাংবাদিককে বেঁধে রাখা যায় না ॥ ড. কামাল

স্টাফ রিপোর্টার, চট্টগ্রাম অফিস ॥ দেশের বিশিষ্ট আইনবিদ ড. কামাল হোসেন বলেছেন, সাংবাদিক প্রবীর সিকদারের মুক্তি জনগণের বিজয়। বাংলাদেশে এমন অন্যায় করে কেউ পার পায় না। প্রবীর সিকদারকে গ্রেফতারের পর সারাদেশে যে প্রতিবাদ হয়েছে তা আমাদের নিজেদের শক্তি। স্বাধীন নাগরিকের শক্তি। শুধু দেশে না, দেশের বাইরেও প্রতিবাদ হয়েছে। বিশ্বের কোথাও সাংবাদিককে বেঁধে রাখা যায় না। বাংলাদেশ বার কাউন্সিল নির্বাচন-২০১৫ উপলক্ষে আইনজীবী ঐক্যফ্রন্টের পক্ষে প্রচারের অংশ হিসেবে ‘আইনের শাসন ও বিচার বিভাগের স্বাধীনতা’ শীর্ষক চট্টগ্রামে আয়োজিত এক আলোচনাসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি উপরোক্ত কথাগুলো বলেন। চট্টগ্রাম জেলা আইনজীবী সমিতির সহ সভাপতি আফাজুর রহমানের সভাপতিত্বে সাধারণ সম্পাদক এনামুল হকের সঞ্চালনায় এতে আরও বক্তব্য রাখেন আইনজীবী ঐক্যফ্রন্টের প্রার্থী এ্যাডভোকেট সুব্রত চৌধুরী, একেএম জগলুল হায়দার, মোঃ হেলাল উদ্দিন ও আবদুর রহমান।

ড. কামাল হোসেন বিনা বিচারে হত্যাকা-ের সমালোচনা করে এর বিরুদ্ধে দলমত নির্বিশেষে সকলকে ঐক্য গড়ে তোলার আহ্বান জানান। তিনি বলেন, অন্যায়কে অন্যায় বলতে হবে। কারও বিবেক যেন একেবারে ধ্বংস হয়ে না যায়। রাজনীতি প্রসঙ্গে বঙ্গবন্ধুকে জাতির সম্পদ আখ্যায়িত করে ড. কামাল বলেন, তাঁর অবমাননা সহ্য করা যায় না। বঙ্গবন্ধু কোন দলের না, কোন উপদলের তো না-ই। মুজিব ভাই বলতে গরু ছাগলের মাথা কেনা যায়, মানুষের মাথা কেনা যায় না। তা তিনি প্রমাণ করে গেছেন বার বার প্রধানমন্ত্রিত্ব প্রত্যাখ্যানের মধ্য দিয়ে। বঙ্গবন্ধুর মাথা কেউ কিনতে পারেনি। ড. কামাল ক্ষোভের সঙ্গে বলেন, এখন দেখছি বিলবোর্ডে বঙ্গবন্ধুর অনেক ছবি উড়ছে। উনার ছবি তো সকলের অন্তরে থাকার কথা, বিলবোর্ডে না। কারা এসব করছে? ভাল লোক হলে অভিনন্দন জানাই। কিন্তু অনেক অপরাধী অপরাধ করে বা অসৎ ব্যবসা করে বঙ্গবন্ধুর ছবি তুলে নিজের নাম যোগ করছে। এটা শুধূু আমার কথা না, সরকারী দলের সাধারণ সম্পাদকের কথা।