২১ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

ঠিকাদারের বিরুদ্ধে অর্থ আত্মসাতের অভিযোগ

  • যশোর মেডিক্যাল কলেজ

স্টাফ রিপোর্টার, যশোর অফিস ॥ যশোর ২৫০ শয্যা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে আউট সোর্সিংয়ে কর্মরত ৪৫ কর্মচারীর বেতন থেকে অর্থ আত্মসাতের অভিযোগ পাওয়া গেছে। গালফ এবং ঊষা সিকিউরিটি লিমিটেড নামে দুই প্রতিষ্ঠানের ঠিকাদারের বিরুদ্ধে অর্থ আত্মসাতের অভিযোগ করেছেন কর্মকর্তরা।

জানা গেছে, মেডিক্যাল কলেজের একাডেমিক কার্যক্রম চালুর পর দাফতরিক কার্যক্রমের জন্য ২০০৯ সালে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের নিয়ম অনুযায়ী ২০১২ সালে আউট সোর্সিংয়ে কর্মচারী নিয়োগের জন্য দরপত্র আহ্বান করা হয়। সেই সময় শূন্য দশমিক এক টাকা দরে গালফ সিকিউরিটি লিমিটেড ২০১২Ñ১৩Ñ১৪ অর্থবছরের জন্য কাজটি পান। তারা ৪৫ জন কর্মচারী নিয়োগ দিলেও নিয়মিত বেতন না দিয়ে ৩Ñ৬ মাস পর বেতন দিতেন। তাও আবার নির্ধারিত বেতন ৬ হাজার ৮শ’ টাকার বিপরীতে কোম্পানির ঠিকাদার কর্মচারী প্রতি ২০১২Ñ১৩ অর্থবছরে দিয়েছিলেন ৪ হাজার টাকা এবং ২০১৩Ñ১৪ অর্থবছরে দিয়েছিলেন ৬ হাজার টাকা। সেই হিসেবে গালফ কোম্পানির ঠিকাদার দুই অর্থবছরে ৪৫ কর্মচারীর বেতন থেকে ১৫ লাখ ৩২ হাজার টাকা আত্মসাত করে। এ সময় গালফ কোম্পানির ঠিকাদার কর্মচারীদের কোন উৎসব ভাতা বা মহার্ঘ্য ভাতা দেননি। বিষয়টি সেই সময় কলেজের অধ্যক্ষ বুঝতে পারলে সেই ঠিকাদারি কোম্পানিকে বাদ দেন। পরে ২০১৪Ñ১৫ অর্থবছরের সেই একই নিয়মে শূন্য দশমিক এক টাকা লাভে ঊষা এসসি লিমিটেড আউট সোর্সিংয়ের কাজটি পান।

এ ব্যাপারে অধ্যক্ষ প্রফেসর ডাঃ আবু হেনা মোহম্মদ মাহাবুব-উল-মাওলা চৌধুরীর জানান, আউট সোর্সিং বিষয়ে কোন ধারণা নেই। প্রশাসনিক কর্মকর্তা বিষয়টি নিয়ন্ত্রণ করেন। বেতন কম পাওয়ার বিষয়ে কোন অভিযোগ তার কাছে নেই।