১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

লালমনিরহাটে ধরলা নদীর পানি বিপদ সীমার উপর

নিজস্ব সংবাদদাতা, লালমনিরহাট॥ ধরলা নদীর পানি বিপদ সীমার ২৪ সেন্টি মিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হয়েছে। ফলে ধরলার শাখা নদী রতœাই পানি আকষিক বৃদ্ধি পেয়েছে। বুড়িমারী লালমনিরহাট মহাসড়কের স্বর্ণমতি সেতুর নবনির্মত দ্বিতীয় বেলী ব্রীজের উপর দিয়ে রত্বাই নদীর প্রবাহিত হচ্ছে। পুরাতন সেতুটির উপরে সকালে ট্রাক বিকল হয়ে পড়েছে। প্রায় ১২ ঘন্টা লালমনিরহাট সদরের সাথে ৪টি উপজেলার সড়ক যোগাযোগ বন্ধ রয়েছে। টানা বর্ষনে ধরলা ও তিস্তা নদীর উপকূলীয় অঞ্চলে বানি বন্ধি হয়ে পড়েছে ১৫ হাজার মানুষ।

তিস্তা নদীর পানি বৃহস্পতিবার ও শুক্রবার বিপদ সীমার ৫ সেন্টি মিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হয়ে ছিল। শনিবার সকাল হতে ভারতের গজলডোবায় পানি প্রত্যাহার বন্ধ করেছে। তাই শনিবার দুপুরের পর হতে তিস্তা নদীর পানি বিপদ সীমার অনেক নিচ দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। বর্ষার পানি তিস্তা নদীতে এসে জমা হচ্ছে। তাই টানা বর্ষনে তিস্তা ও ধরলা নদীর উপকূলীয় অঞ্চলে ও চরে এবং দ্বীপ চরে প্রায় ১৫ হাজার মানুষ পানি বন্ধী হয়ে পড়েছে।

জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা যায়, বন্যা ও পানি বন্দি মানুষের তালিকা সংগ্রহ করে সহায়তা দেয়া হবে। ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও মেম্বাররা তালিকা তৈরী করছে। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাগণ প্রতিটি উপজেলায় বন্যা ও টানাবর্ষন পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করছে।