২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

সাঙ্গাকারাদের সামনে কঠিন চ্যালেঞ্জ

স্পোর্টস ডেস্ক ॥ কুমার সাঙ্গাকারার বিদায়ী টেস্ট জিততে রেকর্ড গড়তে হবে শ্রীলঙ্কাকে। জয়ের জন্য শেষ ইনিংসে শ্রীলঙ্কার সামনে ৪১৩ রানের লক্ষ্য দিয়েছে ভারত। শ্রীলঙ্কার মাটিতে কখনোই চতুর্থ ইনিংসে ৪০০ রান করতে পারেনি কোনো দল।

চতুর্থ ইনিংসে চারশর বেশি রান তাড়া করে জয়ের ঘটনা আছে চারটি। তবে সেই সব তো আর প্রতিদিন ঘটে না! কলম্বোর এই পি সারা ওভালে তিনশর বেশি রান তাড়া করে জয়ের ঘটনা মাত্র একটি, ২০০৬ সালে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে শ্রীলঙ্কার ৬ উইকেটে ৩৫২। পরিস্থিতি বিবেচনায় শ্রীলঙ্কার জয় তাই অসম্ভবই বলা চলে।

পি সারা ওভালে রবিবার দ্বিতীয় ইনিংসে ১ উইকেটে ৭০ রান নিয়ে দিনের খেলা শুরু করেছিল ভারত। আগের দিনের দুই অপরাজিত ব্যাটসম্যান মুরালি বিজয় ও অজিঙ্কা রাহানে চতুর্থ দিন সকালে জুটি বড় করেন আরও। ১৪০ রানের দ্বিতীয় উইকেট জুটি শেষ হয় বিজয়ের বিদায়ে।

থারিন্দু কৌশলকে সুইপ করতে গিয়ে এলবিডব্লিউ হন এই উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান। আউট হওয়ার আগে ১৩৩ বলে ৮২ রান করেন তিনি। খানিক পর ভারতীয় অধিনায়ক বিরাট কোহলিকেও (১০) এলবিডব্লিউ করেন থারিন্দু।

জোড়া আঘাতে থমকে যায়নি ভারতের রানের চাকা। রোহিত শর্মাকে নিয়ে লিড বড় করতে থাকেন রাহানে। বিদেশের মাটিতে গত দুই বছরে ভারতের সেরা ব্যাটসম্যান রাহানে তার সামর্থ্যের প্রমাণ দিয়েছেন আরও একবার। এই টেস্টেই ক্যারিয়ারে প্রথমবারের মতো ব্যাট করছেন টপ অর্ডারে।

প্রথম ইনিংসে তিন নম্বরে নেমে ৪ রানে ফিরে গিয়েছিলেন রাহানে। দ্বিতীয় ইনিংসে ঠিকই করলেন দুর্দান্ত এক শতক। শ্রীলঙ্কার মাটিতে ভারতের কোনো তিন নম্বর ব্যাটসম্যান সবশেষ শতক করেছিল সেই ১৯৯৯ সালে, রাহুল দ্রাবিড়!

রাহানের এটি চতুর্থ টেস্ট শতক, চারটিই দেশের বাইরে। অবশ্য ১৭ টেস্টের ক্যারিয়ারে কেবল একটি ম্যাচই খেলতে পেরেছেন দেশের মাটিতে, ২০১৩ সালে! রাহানের আগের তিনটি শতক ক্রিকেট বিশ্বের তিন প্রান্তে-লর্ডস,মেলবোর্ন ও ওয়েলিংটনে।

বাংলাদেশের ফতুল্লা আর দক্ষিণ আফ্রিকার ডারবানে আছে ৯৮ ও ৯৬ রানের দুটি ইনিংস।

রাহানের ১২৬ রানের ইনিংসটির ইতিও থারিন্দুর অফ স্পিনে। উইকেটের পেছনে দুর্দান্ত ক্যাচ নেন দিনেশ চান্দিমাল। রাহানের আগে তিনি ফেরান রোহিত শর্মাকেও(৩৪)।

শ্রীলঙ্কার জয়টাকে হিসাবের বাইরে ঠেলে দিতেই হয়ত এরপরও ইনিংস ঘোষণায় দেরি করেন কোহলি। শেষ পর্যন্ত সেই ঘোষণা এসেছে চা বিরতির ঘন্টাখানেক পর। ৮ উইকেটে ৩২৫ রান, প্রথম ইনিংসের ৮৭ রানে এগিয়ে থাকা মিলিয়ে লিড ৪১২ রানের।

শেষ দিকে ৩ উইকেটসহ ৪৩ রানে ৪ উইকেট নেন ধাম্মিকা প্রসাদ। ১১৮ রানে ৪ উইকেট নেন থারিন্দু।

গলে প্রখম টেস্ট জিতে ৩ ম্যাচ সিরিজে ১-০তে এগিয়ে আছে শ্রীলঙ্কা।