২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

বেয়ার্নের টানা দুই জয়

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ জার্মান বুন্দেসলিগায় টানা দ্বিতীয় জয় পেয়েছে বেয়ার্ন মিউনিখ। শনিবার অনুষ্ঠিত এ্যাওয়ে ম্যাচে বাভারিয়ানরা ২-১ গোলে পরাজিত করে হোফেনহেইমকে। বেয়ার্নের হয়ে গোল করেন টমাস মুলার ও রবার্ট লেভানডোস্কি। ম্যাচের প্রথম মিনিটেই স্বাগতিক হোফেনহেইমের হয়ে গোল করে ইতিহাসের অংশীদার হয়েছেন কেভিন ভোল্যান্ড।

ম্যাচ শুরু হতে না হতেই বেয়ার্নের জালে বল জড়ান হোফেনহেইমের ফরোয়ার্ড ভোল্যান্ড। এই গোলে দলকে এগিয়ে নেয়ার পাশাপাশি বুন্দেসলিগার ইতিহাসে দ্রুততম গোলের রেকর্ডও স্পর্শ করেন জার্মানির এই খেলোয়াড়। গত মৌসুমে বরুসিয়া ডর্টমুন্ডের বিপক্ষে ৯ সেকেন্ডে রেকর্ড গড়া গোলটি করেছিলেন বেয়ার লেভারকুসেনের ফরোয়ার্ড করিম বেলারাবি। ম্যাচটি শেষ পর্যন্ত ২-০ গোলে জিতেছিল লেভারকুসেন। ঘরের মাঠে প্রতিপক্ষের ডিফেন্ডার ডেভিড এ্যালাবার ভুলে বল পেয়ে যান ভোল্যান্ড। আর তা থেকেই রেকর্ড ছোঁয়া গোলটি করেন তিনি। বেয়ার্নের কিছু বুঝে ওঠার আগেই ম্যাচে এগিয়ে গেলেও কোন অঘটন ঘটাতে পারেনি দলটি। ম্যাচের ৪১ মিনিটে টমাস মুলারের গোলে সমতায় ফেরে আসরের বর্তমান চ্যাম্পিয়নরা।

এই গোলের পরও মনে হচ্ছিল দুই পয়েন্ট খুইয়ে মাঠ ছাড়তে হচ্ছে বেয়ার্নকে। কিন্তু ম্যাচের একেবারে শেষ মিনিটে লেভানডোস্কি গোল করে বেয়ার্নকে পূর্ণ তিন পয়েন্ট এনে দেন। নিজেদের প্রথম ম্যাচে হামবাার্গকে ৫-০ গোলে উড়িয়ে দিয়েছিল বাভারিয়ানরা। ম্যাচ শেষে দলের পারফর্মেন্সে সন্তোষ প্রকাশ করেন বেয়ার্ন কোচ পেপ গার্ডিওলা। তিনি বলেন, এই জয়ে আমি খুশি। গত কয়েক বছর ধরেই হোফেনহেইম আমাদের বিপক্ষে লড়াই করছে। এই ম্যাচেও তারা ভাল করেছে। তবে আমরা যেভাবে ফিরে এসেছি এটা অনেক কৃতিত্বের দাবি রাখে।

গার্ডিওলা তৃপ্ত হলেও হোফেনহেইম কোচ মার্কাস গিসডল হতাশ। রেকর্ড গড়া গোলের পর জয় না হোক ড্রর কাছাকাছি পৌঁছে গিয়েছিল তার দল। কিন্তু অন্তিম মুহূর্তের গোলে সর্বনাশ হয় তাদের। গিসডল তাই বলেন, আমার দল অনেক ভাল খেলেছে, কঠিন পরিশ্রম করেছে। কিন্তু শেষ পর্যন্ত যা হলো তা হতাশাজনক।