২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

বিক্ষুব্ধ জনতাকে হটাতে দুর্গন্ধযুক্ত গ্রেনেড

বিক্ষুব্ধ জনতাকে হটাতে দুর্গন্ধযুক্ত গ্রেনেড

পচা নর্দমার অবর্ণনীয় দুর্গন্ধযুক্ত কোন তরল আপনার মুখে ছিটিয়ে দিলে আপনি কি করবেন? এই অবস্থায় পালানো ছাড়া কোন গত্যন্তর নেই। তবে এর গন্ধ শুধু মানুষকে পর্যুদস্ত করবে। এমনই এক গ্রেনেড তৈরি করেছেন গবেষকরা। বিক্ষোভরত বা ভাংচুরমুখী জনতাকে সামলাতে টিয়ারগ্যাস, প্লাস্টিক বুলেট, স্মোক গ্রেনেড ইত্যাদি বহুল ব্যবহৃত হয়ে আসছে। কিন্তু জনজীবনে হুমকি হয়ে ওঠা জনতাকে সামলাতে নতুন এক গ্রেনেড বা বম্ব গবেষণার প্রাথমিক পর্যায়ে রয়েছে। এর নাম স্টিঙ্ক বম্ব বা স্কাঙ্ক বম্ব যা বাজে দুর্গন্ধ ছড়ায়। স্কাঙ্কের গন্ধের সঙ্গে স্টেরয়েডের গন্ধ মিশে এমন এক গন্ধের সৃষ্টি হবে তা ছড়ালে অনায়াসেই মানুষ পড়িমরি করে দৌড়ে পালাবে।

প্রাথমিক অবস্থায় ইসরাইলী সেনাবাহিনী এই বোমা নিয়ে কাজ করছে। তবে শীঘ্রই তা আমেরিকার সেনাবাহিনীর হাতে এসেছে এবং এ নিয়ে দারুণ উৎসাহী তারা। এই গ্রেনেডের মাধ্যমে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী যে কোন হুমকিমূলক পরিস্থিতি সামাল দেয়ার বিষয়ে আশাবাদ ব্যক্ত করা হচ্ছে।

আমরা সবাই স্কাঙ্ক নামের প্রাণীটির কথা জানি। এই স্তন্যপায়ী প্রাণীটির জীবন হুমকির মুখে পড়লে তারা বিশেষ এক ধরনের তরল ছড়ায় যার গন্ধে যেকোন আক্রমণাত্মক প্রাণী পালায়। অনেকেই এই গন্ধকে পচা দুর্গন্ধযুক্ত মাংসের সঙ্গে তুলনা করেছেন। তবে এর চেয়েও বাজে গন্ধ ছড়ায় স্কাঙ্ক।

এই তরল হবে জীবাণুমুক্ত। একে যে কোন স্প্রে বা অন্য কোন মাধ্যমে ব্যবহার করা যাবে। তবে মিস্ট্রাল সিকিউরিটি নামের প্রতিষ্ঠান একে কয়েকভাবে ব্যবহারের উপায় দেখিয়েছে। গ্রেনেড আকারে ব্যবহার করা যাবে। ৪০ এমএম স্কাঙ্ক গ্রেনেডটি ১২ গজের শটগানের মাধ্যমে ব্যবহার করা হবে। সূত্র: ওয়বসাইট