১২ ডিসেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

সরকারের ব্যাংক ঋণ কমছে

অর্থনৈতিক রিপোর্টার ॥ চলতি ২০১৫-১৬ অর্থবছরের শুরুর দিকে ব্যাংক ব্যবস্থা থেকে হঠাৎ করে প্রচুর ঋণ নিচ্ছিল সরকার। অর্থবছরের প্রথম মাসে ঋণ বাড়তে বাড়তে গত ২১ জুলাই ১০ হাজার ১৭৫ কোটি টাকায় গিয়ে ঠিকেছিল। তবে এখন আবার সরকার যে পরিমাণ ঋণ নিচ্ছে পরিশোধ করছে তার তুলনায় বেশি। এত ঋণ আবার কমতে শুরু করেছে। মঙ্গলবার বাংলাদেশ ব্যাংকের সর্বশেষ প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানা যায়। এতে বলা হয়, গত ১২ আগস্ট সরকারের নিট ঋণ দাঁড়িয়েছে ৮ হাজার ৫২৭ কোটি টাকা।

আশার তুলনায় সঞ্চয়পত্র বিক্রি বেশি হওয়ায় গত অর্থবছর জুড়েই ব্যাংক থেকে সরকারের ঋণ নেয়ার চাহিদা ছিল কম। গত অর্থবছর সঞ্চয়পত্র বিক্রি থেকে নিট ২৮ হাজার ৭৩৩ কোটি টাকা পেয়েছে সরকার। গত অর্থবছরের বাজেটে নির্ধারিত ৯ হাজার ৫৬ কোটি টাকা লক্ষ্যমাত্রার তুলনায় যা তিন গুণেরও বেশি। এতে করে গত অর্থবছর ব্যাংক থেকে সরকার নিট ৩১ হাজার ২২১ কোটি টাকা ঋণের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করলেও তা নিতে হয়নি। অর্থবছর শেষে ঋণ না বেড়ে ৬ হাজার ৮৭০ কোটি টাকা কমে সরকারের পুঞ্জীভূত ব্যাংক ঋণ নেমে আসে এক লাখ ৭ হাজার ৩৭৪ কোটি টাকায়।

তথ্য অনুযায়ী, ব্যাংক থেকে ১২ আগস্ট পর্যন্ত নিট ৮ হাজার ৫২৭ কোটি টাকা নেয়ায় সরকারের মোট ঋণ ১ লাখ ১৪ হাজার ১৫০ কোটি টাকায় দাঁড়িয়েছে। এ সময়ে বাংলাদেশ ব্যাংককে আগের নেয়া ৫০২ কোটি টাকা পরিশোধ করেছে সরকার। আর বাণিজ্যিক ব্যাংক থেকে নেয়া হয়েছে ৯ হাজার ২৯ কোটি টাকা। এতে আলোচ্য সময় পর্যন্ত বাংলাদেশ ব্যাংকে সরকারের পুঞ্জীভূত ঋণ দাঁড়িয়েছে ১১ হাজার ৫৪৮ কোটি টাকা। বাণিজ্যিক ব্যাংকে রয়েছে এক লাখ ২৬ হাজার ২ কোটি টাকা।