২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

বিভেদ তৈরি করছে মোদি সরকার ॥ কংগ্রেস

ভারতের বিহার রাজ্যের নির্বাচন সামনেই। তার আগে ‘নেতিবাচক আঙ্গিকে’ ধর্মভিত্তিক জনগণনা সংক্রান্ত রিপোর্ট প্রকাশ করে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সরকার দুই সম্প্রদায়ের মধ্যে সংঘাত বাধাতে চাইছে বলে অভিযোগ প্রধান বিরোধীদল কংগ্রেসের।

দলের শীর্ষ সারির নেতাদের মতে, সামগ্রিকভাবে মোদি সরকারের ওপর যখন মানুষের মোহভঙ্গ হতে শুরু করেছে, তখন মেরুকরণের রাজনীতির আশ্রয় নিচ্ছে বিজেপি। দেশকে ঠেলে দিচ্ছে বিপজ্জনক ভবিষ্যতের দিকে। খবর আনন্দবাজার পত্রিকার।

কংগ্রেস ওয়ার্কিং কমিটির সদস্য শাকিল আহমেদ আজ বলেন, জনগণনার পরিসংখ্যান বিচার করলে দেখা যাবে, পরিবার পরিকল্পনা নিয়ে সব ধর্মের মানুষের মধ্যেই সচেতনতা বাড়ছে। কিন্তু বুধবার সরকারের তরফে প্রকাশিত প্রেস বিবৃতিতে মোটের উপর এই বার্তাই দেয়ার চেষ্টা হয়েছে যে, হিন্দু জনসংখ্যা কমছে, মুসলিম জনসংখ্যা বাড়ছে। শাকিলের প্রশ্ন, সরকারই যদি এভাবে এক সম্প্রদায়ের সঙ্গে অন্য সম্প্রদায়ের লড়াই বাধিয়ে দেয়ার চেষ্টা করে, তা হলে দেশকে কে বাঁচাবে। ধর্মভিত্তিক জনসংখ্যার রিপোর্ট উদ্ধৃত করে কংগ্রেসের মুসলিম নেতারা বলছেন, ৯০’র দশকের তুলনায় গত দশকে হিন্দু জনসংখ্যা বৃদ্ধির হার ৩.১৬ শতাংশ কমেছে। কিন্তু মুসলিম জনসংখ্যা বৃদ্ধির হার কমেছে তার থেকে বেশি মাত্রায় ৪.৯২ শতাংশ। কিন্তু সরকারের পক্ষ থেকে ভিন্ন ছবি তুলে ধরার চেষ্টা হচ্ছে বলে অভিযোগ কংগ্রেসের। তবে বিজেপি কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব এই অভিযোগ খারিজ করে দিয়েছেন।

রকেট হামলার পর গাজায় ইসরাইলী বিমান হামলা

ফিলিস্তিনের গাজায় হামাসের স্থাপনা লক্ষ্য করে ইসরাইল বুধবার রাতে বিমান হামলা চালিয়েছে। এর আগে ফিলিস্তিন থেকে ইসরাইলের দক্ষিণাঞ্চলে রকেট হামলা চালানো হয়। খবর এএফপির

ইসরাইলী সেনাবাহিনীর এক বিবৃতিতে বৃহস্পতিবার এ কথা জানিয়ে বলা হয়, রকেট হামলার জবাবে ইসরাইলী বাহিনী গাজা উপত্যাকার মধ্যাঞ্চলে হামাসের অস্ত্র তৈরির কারখানায় বিমান হামলা চালিয়েছে।

তবে উভয় হামলায় হতাহতের কোন খবর পাওয়া যায়নি। ইসরাইল তার ভূখ-ে সব ধরনের হামলার জন্যে জঙ্গী সংগঠন হামাসকে দায়ী করে আসছে। গত গ্রীষ্মে ইসরাইল গাজা ভূখ-ে ৫০ দিন ধরে ব্যাপক হামলা চালায়।