২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

হরিণের খোঁজে নিঝুম দ্বীপে

  • অহিদ উল্লাহ পাটোয়ারী

নিঝুম দ্বীপ নামটা শুনলেই মনটা কেমন যেন ছটফট করতে থাকে। অনেক প্রতিকূলতা উপেক্ষা করে ‘ঘুরে বেড়াই বাংলাদেশ’ দলের বন্ধুরা রওনা দেই সেই না দেখা গন্তব্যের উদ্দেশ্যে। নোয়াখালীর হাতিয়া উপজেলার দক্ষিণ-পশ্চিমে বঙ্গোপসাগরের বুকচিরে জেগে ওঠা ছোট্ট একটি ভূ-খ-, যা আমাদের সবার কাছে নিঝুম দ্বীপ নামেই পরিচিতি। দ্বীপটির প্রাচীন নাম চর ওসমান। ওসমান নামের এক ব্যক্তি মহিষের দল নিয়ে সর্বপ্রথম এই দ্বীপে বসবাস শুরু“করেন। দ্বীপটি সম্পূর্ণ নীরব হওয়ায় এর নামকরণ করা হয় নিঝুম দ্বীপ। নিঝুম দ্বীপের বুক চিরে চলা মাওয়া রাস্তা দিয়ে আমরা হেঁটেছি আর প্রাণ ভরে দেখেছি এ দ্বীপের অপরূপ সৌন্দর্য। রাতে থাকার জন্য হোটেল শাহিনে গিয়ে উঠি। এ দ্বীপে নেই কোন বিদ্যুত। রাতে জ্বলে সোলার বাতি। সত্যি সব যেন নিঝুম। হরিণ ভর্তি দ্বীপ, কুমিল্লা থেকে এমনটা শুনে গেলেও হরিণ দেখার জন্য অনেক পরীক্ষা দিতে হয়েছে। হরিণ দেখার উপযুক্ত সময় হলো সূর্যাস্ত বা সূর্যাদয়ের সময়। এ সময়ে শত শত হরিণ বন থেকে বের হয়ে আসে পানি খাওয়ার জন্য। তবে তাদের দেখা পেতে হলে অপেক্ষা করতে হবে নিঃশব্দে। হরিণ দেখার জন্য আমরা বের হয়ে গেলাম দিনের আলো ফোটার আগেই। গাইড হিসেবে পেয়ে গেলাম স্থানীয় আট-দশ বছরের ছেলে রাসেলকে। রাসেল ‘ঘুরে বেড়াই বাংলাদেশ’ দলকে নিয়ে চললেন গহীন অরণ্যে। নামার বাজারের পাশে ছোট্ট একটা খাল পেরিয়ে হাঁটতে খাকি গহীন জঙ্গলে। পথেই একটা আজব শব্দ কানে এলো, রাসেল বলল, এটাই হরিণের ডাক। তবে তখনও দেখা মেলেনি হরিণের। মিনিট ত্রিশেক নীরবে অপেক্ষা করার পর দেখলাম শত শত হরিণ দল বেঁধে যাচ্ছে। সে এক অপূর্ব দৃশ্য। মনে হলো কেবল এই দৃশ্যটা দেখার জন্যই আমাদের আবার আসতে হবে।

কিভাবে যাবেন

ঢাকার মহাখালী, কমলাপুর ও সায়েদাবাদ থেকে এশিয়া লাইন, এশিয়া ক্লাসিক, একুশে এক্সপ্রেস ও হিমাচল এক্সপ্রেসের বাস যায় নোয়াখালীর সোনাপুর। ভাড়া ৩৫০-৪৫০ টাকা। সেখান থেকে সিএনজিচালিত অটোরিক্সাতে চেয়ারম্যান ঘাট। ভাড়া ১০০ টাকা। এরপর ট্রলারে চড়ে যেতে হবে নলচিরাঘাট। ভাড়া ১৫০ টাকা। সেখান থেকে আবার বাসে জাহাজমারা বাজার। ভাড়া ৭০ টাকা।

জাহাজমারা বাজার থেকে মোটরসাইকেলে মুকতারাঘাট। ভাড়া ৭০ টাকা। মুকতারাঘাট থেকে ইঞ্জিন নৌকায় নিঝুম দ্বীপ ঘাট। ভাড়া ১০ টাকা। সেখান থেকে আবার মোটরসাইকেলে যেতে হবে নামার বাজার (নিঝুম দ্বীপ)। ভাড়া ৬০ টাকা।