২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

মাদারীপুরে ব্যাপক নদী ভাঙ্গন

মাদারীপুরে ব্যাপক নদী ভাঙ্গন

নিজস্ব সংবাদদাতা, মাদারীপুর॥ উজান থেকে বন্যার পানি নেমে আসায় জেলার নদ-নদীর পানি অস্বাভাবিক হারে বৃদ্ধি পেয়েছে। পানি বৃদ্ধির সাথে দেখা দিয়েছে নদী ভাঙ্গন। গত ৪ দিনে আড়িয়াল খাঁ নদের পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় ঢাকা-খুলনা মহাসড়ক রক্ষা বাঁধের শিবচর অংশের ১শ মিটার নদী গর্ভে বিলীন হয়ে গেছে। ফলে দেশের গুরুত্বপুর্ণ মহাসড়কের বিশাল অংশ চরম ঝূঁকিতে রয়েছে। একই সাথে উত্তর বহেরাতলায় নতুন করে ভাঙ্গন শুরু হয়েছে।

জানা গেছে, গত ৪ দিনে আড়িয়াল খাঁ, কুমার ও পালরদী নদীর পানি অস্বাভাবিক হারে বৃদ্ধি পেয়েছে। পানির তোড়ে ঢাকা-খুলনা মহাসড়ক রক্ষা বাধের মাদারীপুরের শিবচরের দত্তপাড়া অংশের ১শ মিটার বাঁধ নদী গর্ভে বিলীন হয়ে গেছে। ভাঙ্গন এলাকা থেকে মহাসড়ক মাত্র ১৫০ মিটার দূরত্বে চরম ঝূঁকিতে রয়েছে। বাঁধের ১শ মিটার ছাড়াও সংলগ্ন বেশকিছু ঘর-বাড়ি ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে। ভাঙ্গনের তীব্রতা অনেক বেশি হওয়ায় ভাঙ্গন কবলিত এলাকায় আতংক দেখা দিয়েছে।

মাদারীপুর পানি উন্নয়ন বোর্ডের উপ বিভাগীয় প্রকৌশলী শাহাদাত হুসাইন চৌধুরী বলেন, “মহাসড়ক সংলগ্ন বাঁধের ভাঙ্গন ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থায় রয়েছে। জরুরী ভিত্তি¦তে এখানে কাজ শুরু করা দরকার। তা না হলে মহাসড়ক ঝুঁকিতে পড়বে”।

এদিকে নদীভাঙ্গন কবলিত এলাকা পরিদর্শন করে ২৪ ঘন্টার মধ্যে ভাঙ্গন প্রতিরোধে ব্যবস্থা গ্রহণের নির্দেশ দিয়েছেন নৌ-পরিবহন মন্ত্রী শাজাহান খান। ভাঙ্গনের তীব্রতা দেখে মন্ত্রী শংকা প্রকাশ করেন এবং এলাকায় বসেই জেলা প্রশাসকসহ সংশ্লিষ্টদের দ্রুত ব্যবস্থা গ্রহণের নির্দেশনা দেন। এসময় বিআইডব্লিউটিএর চেয়ারম্যান ছাড়াও উপস্থিত ছিলেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ইমরান আহমেদ, মাদারীপুর সড়ক ও জনপথ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী আবু হেনা মোস্তফা কামাল, পরিদর্শক(তদন্ত) আবুল খায়ের, স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান মুরাদ চৌধুরী প্রমুখ। ঢাকা-খুলনা মহাসড়ক রক্ষা বাধ প্রসঙ্গে মন্ত্রী বলেন, ঢাকা-খুলনা মহাসড়ক রক্ষা বাধের আড়িয়াল খা নদের ভয়াবহ ভাঙ্গনের কারনে মহাসড়ক ও হাজী শরিয়তউল্লাহ সেতু হুমকির মুখে রয়েছে। ২৪ ঘন্টার মধ্যে থেকেই প্রটেকশন কাজ করার জন্য নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।