২১ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

গাইবান্ধায় বন্যায় ফসলহানি প্রয়োজনীয় জিনিসের দাম বেড়েছে

নিজস্ব সংবাদদাতা, গাইবান্ধা ॥ গাইবান্ধা জেলায় ভাদ্র মাসের এই অকাল বন্যায় জেলার বন্যা কবলিত ৬টি উপজেলায় শাকসবজি, মসলা ও ডাল জাতীয় ফসল ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। ফলে বাজারে নিত্য প্রয়োজনীয় এসমস্ত জিনিসের সরবরাহ কমে যাওযায় আকস্মিক মূল্য বৃদ্ধি পেয়েছে। তদুপরি আসন্ন ঈদুল আজহাকে সামনে রেখে পাইকারী ব্যবসায়িদের মধ্যে মজুদ প্রবণতা বৃদ্ধি পাওয়ার কারণও এইসব পণ্যের মূল্য বৃদ্ধির কারণ বলে ক্রেতারা জানিয়েছেন।

শনিবার সরেজমিনে বিভিন্ন জেলা শহরের প্রধান প্রধান বাজার ও গ্রামের বড় বড় হাট-বাজারগুলোতে খোঁজ খবর নিয়ে এসব তথ্য জানা গেছে। গত এক সপ্তাহে পিয়াজ, মরিচ, আদা, রসুনসহ সকল শাকসবজির মূল্য অস্বাভাবিক বৃদ্ধি পেয়েছে। এরমধ্যে বর্তমানে পিয়াজ প্রতিকেজি ৮০ টাকা, মরিচ ১৬০, বেগুন ৪৮, পটল ৪০, কচু ২০, পেঁপে ২৪, ঝিঙা ও করলা ৪৮, দেশী করলা ৮০, বরবটি ৪৮, পাতাকপি ৬০, আদা ১২০, রসুন ৮০, সুট মরিচ ১০০, আলু ২০, শাক-সবজি ২৮। এছাড়া বন্যায় নদ-নদী ও খাল-বিলের পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় মাছের সরবরাহ হাট-বাজারগুলোতে অনেক কমে গেছে। ফলে এই মৌসুম সময়েও মাছ উচ্চ মূল্যে বিক্রয় হচ্ছে।

এদিকে শাকসবজি ও মসলা জাতীয় ফসলের মূল্য বৃদ্ধি পেলেও চালের দামের কোন তারতম্য হয়নি। এখনও গাইবান্ধা জেলার হাট-বাজারগুলোতে চিকন চাল ৩০ টাকা, মোটা চাল ২৮, আতপ চাল ৬৫।