১২ ডিসেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

বাংলাদেশ সফরে থাকছেন না জনসন !

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ আগামী অক্টোবরে বাংলাদেশ সফরে আসবে অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট দল। সফরে দুই টেস্টের সিরিজ খেলবে তারা। তবে এবার নতুন চেহারা নিয়েই আসছে অসিরা। আগেভাগেই নিশ্চিত ছিল অনেক পরিবর্তন আসবে তাদের টেস্ট দলে। কারণ অধিনায়ক মাইকেল ক্লার্ক অবসর নিয়েছেন। নতুন কা-ারি স্টিভেন স্মিথ। তার অধীনে এবার এ্যাশেজ ব্যর্থতার কারণে অনেক ক্রিকেটারই দল থেকে ছিটকে যাবেন। এবার দলের নির্ভরযোগ্য ও অভিজ্ঞ পেসার মিচেল জনসনের খেলা নিয়েও সংশয় তৈরি হয়েছে। ৩৩ বছর বয়সী এ পেসারকে বিশ্রাম দেয়া হতে পারে। এছাড়া ২৪ বছর বয়সী তরুণ উদীয়মান গতি তারকা জশ হ্যাজলউডকেও বিশ্রাম দেয়ার পরিকল্পনা রয়েছে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার (সিএ)। বাংলাদেশ সফরের পরই ঘরের মাটিতে ট্রান্স-তাসমান শত্রু নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজ। সেই সিরিজে এ দুই পেসারকে পুরোপুরি ফিট এবং সতেজ রাখতেই এমন চিন্তা।

গত চার বছরে একবারও ময়দানী লড়াই হয়নি অস্ট্রেলিয়া-বাংলাদেশের। এবার অবশ্য বিশ্বকাপে গ্রুপ পর্বে মুখোমুখি লড়াই হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু বৈরি আবহাওয়ার কারণে সেই ম্যাচটিও হয়নি। সর্বশেষ ২০১১ সালের এপ্রিলে বাংলাদেশ সফরে তিন ওয়ানডে খেলার পর আর বাংলাদেশের বিপক্ষে তাই খেলা হয়নি অসিদের। আর টেস্ট খেলেছে সাড়ে ৯ বছর আগে। এর মধ্যে বদলেছে উভয় দলই। তবে সবচেয়ে বড় পরিবর্তন এসেছে বাংলাদেশ দলের মধ্যে। আগের চেয়ে অনেক শক্তিধর দলে পরিণত হয়েছে। আর ঘরের মাটিতে অদম্য টাইগারা। আর ২০১১ সালে সর্বশেষ যখন বাংলাদেশের বিপক্ষে খেলেছে অসিরা সেটাই ছিল অধিনায়ক হিসেবে ক্লার্কের প্রথম মিশন। এরপর আর ক্লার্কবাহিনী টাইগারদের সামনে দাঁড়ায়নি। এবার ক্লার্ক নেই। অসিরা আসছে নতুন অধিনায়ক স্মিথের অধীনে। এটিই হবে স্থায়ী অধিনায়ক হিসেবে স্মিথের প্রথম মিশন। তবে এই মিশনে আসার আগে অস্ট্রেলিয়া দলে আসছে অনেক পরিবর্তন। কারণটা সম্প্রতি ব্যর্থতা।