২৩ অক্টোবর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

শরণার্থীকে ল্যাং মেরে চাকরি হারাল সংবাদকর্মী

কয়েক শ’ শরণার্থী যখন পুলিশ এড়াতে ছুটছিলেন তখনই শিশুকোলে এক বৃদ্ধকে ল্যাং মেরে ফেলে দিয়ে সমালোচনার মুখে পড়েছেন হাঙ্গেরির একটি টেলিভিশনের এক ক্যামেরাপারসন, যার খেসারত তাকে দিতে হয়েছে চাকরি খুইয়ে। মঙ্গলবার হাঙ্গেরির রোসকি সীমান্তের ওই ঘটনা ক্যামেরাবন্দী করে ২০ সেকেন্ডের একটি ভিডিও নিজের টুইটার এ্যাকাউন্টে তোলেন জার্মানির আরটিএল টেলিভিশনের সাংবাদিক স্টেফান রিচার। এর পর ভিডিওটি ভাইরাল হয়ে যায়, ছড়িয়ে পড়ে সামাজিক যোগাযোগের বিভিন্ন ওয়েবসাইটে। এনওয়ানটিভির যে ক্যামেরাপারসন এই কাণ্ড ঘটিয়েছেন, সেই পেত্রা লাসলোর প্রতি নিন্দা জানাতে রাতারাতি একটি ফেসবুক গ্রুপও খোলা হয়েছে। রোসকি সীমান্তে শরণার্থীদের ঢল ঠেকাতে পুলিশী তৎপরতার মধ্যে আরও অনেকের সঙ্গে খবর ও ছবি সংগ্রহের দায়িত্বে ছিলেন পেত্রা লাসলো। এক পর্যায়ে আশ্রয়প্রার্থীরা পুলিশের বেষ্টনী ভেঙে বুদাপেস্টের দিকে ছুট লাগায়। খবর ওয়েবসাইট।

ব্রিটেনের ‘কিল লিস্টে’ সবার ওপরে জন জিহাদীর নাম

সিরিয়ায় ব্রিটিশ ড্রোন হামলার বৈধ লক্ষ্যস্থল হিসাবে ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী ডেভিড ক্যামেরনের অনুমোদিত পাঁচ ইসলামিক স্টেট চরমপন্থীর ‘কিল লিস্টে’ সবার উপরে রয়েছে জিহাদী জনের নাম। গত মাসে অব্যর্থ হামলায় তিন চরমপন্থী নিহত হওয়ার পর আর পাঁচজনকে ভবিষ্যত ড্রোন হামলার লক্ষ্যস্থল করা হয়েছে। খবর ডেইলি টেলিগ্রাফের।

প্রতিরক্ষা মন্ত্রী মাইকেল ফ্যালন বলেন, আমাদের রাস্তায় রাস্তায় সশস্ত্র হামলা চালানোর যড়যন্ত্র করছে এমন একদল জিহাদীর ওপর ড্রোন হামলা চালাতে ব্রিটেন দ্বিধা করবে না।

তিনি আভাস দেন যে, যুক্তরাজ্যে যাতে সন্ত্রাসীদের বর্বর কর্মকা- সফল না হতে পারে, সে জন্য কয়েক সপ্তাহের মধ্যে সিরিয়াতে আরও বিমান হামলা চালনো হতে পারে।

কতজন জিহাদীকে হামলার লক্ষ্যস্থল করা হয়েছে, তা জানাতে তিনি অসম্মত হন। কিন্তু আরও মোট পাঁচ জন সম্ভাব্য লক্ষ্যস্থলের তালিকায় রয়েছে।