১২ ডিসেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

শিক্ষকদের আন্দোলন নিয়ে মন্তব্যের জন্য অর্থমন্ত্রীর দুঃখ প্রকাশ

স্টাফ রিপোর্টার, সিলেট অফিস ॥ বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষকদের আন্দোলন নিয়ে মন্তব্যের জন্য দুঃখ প্রকাশ করেছেন অর্থ মন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিত। তিনি বলেছেন, ‘আমার বক্তব্যের জন্য আমি দুঃখিত।’ তবে অর্থমন্ত্রী এও বলেছেন, ‘শিক্ষকদের আন্দোলনে আমি বিস্মিত হয়েছি। কারণ তারা সরকারী সিদ্ধান্ত না জেনেই আন্দোলন করছেন।’ বৃহস্পতিবার বিকেল সোয়া ৪টায় সিলেট সার্কিট হাউসে এক জরুরী সংবাদ সম্মেলনে অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘আমাদের শিক্ষাজগতে বেশ ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে আমারই একটি মন্তব্য নিয়ে। আমার মনে হয় এই বিষয়টির নিষ্পত্তি হওয়া প্রয়োজন। গত সোমবার সাংবাদিকরা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের বেতন কমিশনের সুপারিশবিরোধী আন্দোলন সম্বন্ধে আমার মন্তব্য জানতে চান। আমি বলি যে, তাদের এই আন্দোলনটি অকারণে শুরু হয়েছে এবং এটা আমাকে গভীর পীড়া দেয় এজন্য যে, দেশের সবচেয়ে শিক্ষিত গোষ্ঠী একটি আন্দোলন করছেন।’ মন্ত্রী বলেন, ‘আমার বলার কথা ছিল যে, তারা প্রকৃত সুপারিশ এবং সর্বোপরি সরকারী সিদ্ধান্ত না জেনেই আন্দোলনে নেমে গেলেন। আমার বলা উচিত ছিল যে, তাদের আন্দোলনটি তাদের অনবহিতের জন্য, তারা সঠিক তথ্য জানতেন না বলে তারা আনইনফর্মড ছিলেন।’ অর্থমন্ত্রী আরও বলেন, ‘আমি যেভাবে বক্তব্যটি দিই তাতে অবশ্যই তাদের মানহানি হয়েছে। কারণ ‘জ্ঞানের অভাব’ বলা আর ‘যথাযথ তথ্য সম্বন্ধে অনবহিত’ বলার মধ্যে অনেক তফাৎ রয়েছে। আমি আমার বক্তব্য সম্বন্ধে খুবই দুঃখিত। তবে বিস্মিত যে, তারা সরকারী সিদ্ধান্ত জানার আগেই আন্দোলনে নেমে গেলেন। আমার এই বক্তব্য যেভাবে সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশিত হয়েছে তা অনভিপ্রেত ছিল এবং আমি তা প্রত্যাহার করছি। এজন্য যারা ক্ষুব্ধ হয়েছেন বা দুঃখ পেয়েছেন তাদের কাছে বিনীত অনুরোধ, ভুল বোঝাবুঝির এখানেই সমাপ্তি হোক। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ, মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি বদর উদ্দিন আহমদ কামরান, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শফিকুর রহমান চৌধুরী, মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী কয়েস এমপি, ইমরান আহমদ এমপি, ড. আহমদ আল কবীর, জেলা প্রশাসক জয়নাল আবেদিন প্রমুখ।