২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

শাস্তির খেসারত ॥ পাঁচ ছাত্রের প্যান্ট ফেটেছে

স্টাফ রিপোর্টার, মুন্সীগঞ্জ ॥ এক নয়, দুই নয়, পাঁচ ছাত্রের প্যান্ট ফাটিয়েছেন শিক্ষিকা শম্পা আক্তার। এ নিয়ে হৈ চৈ আর হাসাহাসির শেষ নেই। রবিবার সিরাজদিখানের মালখানগর মিলেনিয়াম চাইল্ড কিন্ডারগার্টেনের ৩য় শ্রেণির ৫ ছাত্রের প্যান্ট ফেটে যায়। সকাল সারে ৯টায় ড্রইং ক্লাশ নিচ্ছিলেন শম্পা আক্তার। এই ৫ ছাত্র ড্রইং খাতা না আনায় শিক্ষক তাদের কান ধরে উঠবস করতে বলেন। উঠবস করার সময় পর পর তানজিল (৯), রুপম (৯), নুর হোসেন কনক (৮) অমিয় মল্লিক (৮) ও আরাফাতের (৯) প্যান্ট ফেটে যায়। এ নিয়ে ক্লাসে ছাত্ররা হাসাহাসি করলে পাশের বিভিন্ন ক্লাশে জানাজানি হয়। পরে স্কুল থেকে ফোন দিয়ে অভিভাবকদের প্যান্ট আনার জন্য বলা হয়। শম্পা আক্তার জানান, খাতা না থাকলে ড্রইং করকে কিভাবে! এর শাস্তি হিসাবে কানে ধরে উঠবস করানো হয়। কিন্তু এত চাপা প্যান্ড পরেছে শিশুরা যে উঠ বস করতেই ফেটে যায়। ছাত্র রূপমের মা রুপা আক্তার জানান, স্কুল থেকে ফোন দিলে ওর আব্বুকে দিয়ে প্যান্ট পাঠাই। সাড়ে ১০ টায় ছুটি হলে ওকে আনতে গিয়ে দেখি ঘটনাটি নিয়ে বেশ আলোচনা আর হাসাহাসি। কাকতালীয়ভাবে ৫ ছাত্রের প্যান্ট ফেটে যাওয়ায় ঘটনাটি বিশেষ পরিস্থিতি সৃষ্টি করেছে

নির্বাচিত সংবাদ