২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

বাংলাদেশের সঙ্গে শীঘ্রই রাজনৈতিক পরামর্শ শুরু করবে ইরান

  • রাষ্ট্রপতির সঙ্গে সাক্ষাতে জারিফ

ইরানের সফররত পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. মোহাম্মদ জাভেদ জারিফ বলেছেন, তার দেশ বাংলাদেশের সঙ্গে রাজনৈতিক ও অর্থনৈতিক সম্পর্ক বৃদ্ধি করতে আগ্রহী। তিনি বলেন, ইরান শীঘ্রই বাংলাদেশের সঙ্গে রাজনৈতিক পরামর্শ শুরু করার পদক্ষেপ নেবে। জাভেদ জারিফ বুধবার বঙ্গভবনে রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদের সঙ্গে সাক্ষাতকালে এ কথা বলেন। এ সময় রাষ্ট্রপতি পরমাণু বিষয়ে সাফল্যজনক সমঝোতার জন্য ইরান সরকারের প্রশংসা করেন। খবর বাসসর।

আবদুল হামিদ বলেন, বাংলাদেশ ও ইরানের মধ্যকার সম্পর্ক ঐতিহাসিক। তিনি বলেন, ইরান সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের নেতৃত্বে ৬টি প্রধান পরাশক্তির সঙ্গে সাফল্যজনক পরমাণু সমঝোতা চুক্তি সম্পন্ন করেছে। এর ফলে দু’দেশের মধ্যে সম্পর্ক জোরদারের পথ উন্মুক্ত হবে। এ বছরের জুলাইতে ইরান এবং ৬ বিশ্বশক্তি- রাশিয়া, যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য, চীন, ফ্রান্স ও জার্মানি এক দশক মেয়াদী একটি পারমাণবিক চুক্তিতে উপনীত হয়েছে। আবদুল হামিদ বলেন, দু’দেশের মধ্যে বাণিজ্য ও বিনিয়োগ বৃদ্ধির লক্ষ্যে বাংলাদেশ ও ইরানের সরকারী এবং বেসরকারী পর্যায়ে এক সঙ্গে কাজ করা উচিত।

ড. মোহাম্মদ জাভেদ জারিফ বলেন, পারস্পরিক স্বার্থে সহযোগিতা বৃদ্ধির মাধ্যমে দু’দেশ জাহাজ নির্মাণ শিল্প খাতে কাজ করতে পারে। তিনি বলেন, ইরান এ ক্ষেত্রে জ্ঞান ও অভিজ্ঞতা দিয়ে বাংলাদেশকে সহায়তা করতে আগ্রহী।

রাষ্ট্রপতি এবং ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী দু’দেশের জনগণের সঙ্গে জনগণের যোগাযোগ বৃদ্ধির প্রয়োজনীয়তার ওপর গুরুত্ব আরোপ করেন। তারা একটি পার্লামেন্টারি ফ্রেন্ডশিপ গ্রুপ গঠনের বিষয়েও একমত হন। আবদুল হামিদ বলেন, বাংলাদেশ ও ইরান বিভিন্ন আন্তর্জাতিক ফোরামে একে অপরকে সমর্থন দিয়ে আসছে। ইন্টার পার্লামেন্টারি ইউনিয়ন (আইপিইউ) নির্বাচনে বাংলাদেশকে সমর্থন প্রদানের জন্য রাষ্ট্রপতি ইরানের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন। এ ক্ষেত্রে ভবিষ্যতেও ইরানের সহযোগিতা অব্যাহত থাকবে বলে তিনি আশা প্রকাশ করেন।