২১ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

পাক-ভারত সিরিজের বিপক্ষে আফ্রিদি!

স্পোর্টস রিপোর্টার॥ চলতি বছর শেষদিকে ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে প্রস্তাবিত দ্বিপাক্ষিক ক্রিকেট সিরিজের ভাগ্য ধোঁয়াশাচ্ছন্ন। দুই বোর্ডের আলোচনাতেও তেমন কোন অগ্রগতি নেই। এমন সময় পাকিস্তানের টি২০ অধিনায়ক শহীদ আফ্রিদিই পক্ষপাতী না ভারতের বিরুদ্ধে সিরিজ খেলতে। তিনি মনে করেন ভারত না চাইলে সিরিজ খেলতে জোরাজুরির কোন প্রয়োজন নেই। এবার ফ্র্যাঞ্চাইজি ভিত্তিক প্রথম টি২০ আসর পাকিস্তান সুপার লীগ (পিএসএল) আয়োজন করবে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)। টুর্নামেন্টটি কাতারের রাজধানী দোহায় অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে। তবে আফ্রিদি মনে করেন পিএসএল পাকিস্তানেই হওয়া উচিত। স্পট ফিক্সিংয়ের জন্য ৫ বছরের নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে এখন ফেরার লড়াইয়ে আছেন তিন ক্রিকেটার সালমান বাট, মোহাম্মদ আসিফ ও মোহাম্মদ আমির। তারা এ আসরে খেলতে মরিয়া। আগেভাগেই ক্ষমা প্রার্থনাসহ, আইসিসির বিভিন্ন সচেতনতামূলক প্রচারণায় অংশ নিয়ে ফেরার পথটা সুগম করে ফেলেছেন আমির। একই প্রক্রিয়ার মধ্যে এখন বাট ও আসিফও আছেন। সেই প্রক্রিয়ার অংশ হিসেবে টি২০ অধিনায়ক আফ্রিদির কাছে ক্ষমা প্রার্থনা করেছেন বাট।

২০১২ সালের শেষে সংক্ষিপ্ত একটি সিরিজ খেলতে ভারত সফর করেছিল পাকিস্তান ক্রিকেট দল। এবার ফিরতি সিরিজ খেলার জন্য ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ডকে (বিসিসিআই) চাপাচাপি করছে পিসিবি। কিছুদিন আগে দুই বোর্ডের মধ্যে আগামী ২০২২ পর্যন্ত অন্তত ৬টি সিরিজ অনুষ্ঠিত হওয়ার বিষয়ে চুক্তি হয়েছে। কিন্তু এবারের সিরিজটিই না হওয়ার সম্ভাবনা অনেক বেশি। কিন্তু হাল ছাড়ছে না পিসিবি এবং বিসিসিআইকে চাপের মধ্যে রেখেছে তারা। এ বিষয়ে আফ্রিদি বলেন,‘আমি জানিনা যেক আমরা ভারতের বিরুদ্ধে সিরিজ খেলার জন্য বারবার জোরাজুরি করছি। যদি তারা না চায় তাহলে আমি ভারতের বিরুদ্ধে সিরিজ খেলার কোন কারণ দেখতে পাচ্ছি না।’ আফ্রিদি এ কথা বললেন অবশ্য পিসিবি চেয়ারম্যান শাহরিয়ার খানের মন্তব্যের পরই। তিনি আগের দিন বলেছিলেন,‘ভারতের বিরুদ্ধে সিরিজ খেলা জরুরী নয়। তাদের বোর্ড রাজি, কিন্তু সরকার থেকে সবুজ সঙ্কেত পেতে হবে। এমন অবস্থায় আমাদের মনে হয়না সিরিজটা হতেই হবে।’