২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

কামারপাড়ার ব্যস্ততা

  • এম মামুন

পবিত্র ঈদুল আযহাকে সামনে রেখে প্রস্তুতি চলছে কামারীদের বেচাকেনা ও চলছে ধুম ধাম। কেউ কিনছে বাটি, কেওবা চাপাতি, আবার কেউ বা ছুরি। আবার কেউ কেউ সবগুলোই কিনছে। রাজধানী ও প্রায় সব মহল্লাতেই পাওয়া যাচ্ছে এ সব। অনেকে আবার ঘুরে ঘুরে দা, বটি, চাকু ধার দিচ্ছে। মোটের উপরে এই শিল্পের সাথে যারা জড়িয়ে আছে তারা অনেক ব্যস্ত সময় পার করছে। প্রতি গলিতে গলিতে শোনা যাচ্ছে তাদের সেই পরিচিত স্লোগান। ঢাকার সব যায়গাতে প্রায় একই রকম দামে বিক্রি হচ্ছে নতুন তৈরি এই দা-বটি গুলো। পশু জবাই করার মত বড় আকৃতির ছুড়ি বিক্রি হচ্ছে ৮’শ থেকে ১২’শ টাকা। মাঝারি আকৃতির ছুড়ি বিক্রি হচ্ছে- ৩’শ থেকে ৯’শ টাকা। ঈদের সময়টা কামারিরা বেশ আনন্দেই কাটায়। সারা বছর কোন রকম বেচাকেনা করলেও ঈদের আগে অন্তত ১৫ দিন বেশ উপার্যন করে। নতুন দা-বটি তৈরির সাথে সাথে পুরাতন দা-বটি, ছুড়ি পাপাতি ধার বা সান ও দিয়ে থাকে। আকৃতির উপর নির্ভর করে এর দাম নির্ধারণ করা হয়। ২০ টাকা থেকে শুরু করে ৮০ টাক ১০০ টাকা পর্যন্ত প্রতিটি, দা,বটি, ছুড়ি, চাপাতি হতে আদায় করে। কোন কোন কামারি ৫০ টাকা থেকে ১০০ টাকা দরে পুরাতন লোহা কিনে ১৫০ থেকে ২৫০ টাকা বিক্রি করেন। বিভিন্ন রকম মটর যান, মেশিনের যন্ত্রাংশ ইত্যাদি দিয়ে তৈরি করে কুরবানীর ঈদে পশু জবাইয়ের যন্ত্রাদি। মোটের উপরে কামারিদের ভালই দিন কাটছে। বর্তমান অবস্থায়, শরীরে ঘাম ঝড়লেও মুখে মুক্তোর হাসি।

মসলার দরদাম

মাহবুব শরীফ

কুরবানির ঈদ মানে গরু মহিষ, ছাগল উটের মাংসের ছড়াছড়ি। মসলা তো লাগবেই! যে সকল মসলার প্রয়োজনীয়তা রয়েছে তার মধ্যে এলাচি, লবঙ্গ, গোল মরিচ, জিরার অবস্থান শীর্ষে। অন্য মসলারও প্রয়োজন আছে। জায়ফল, শঠবাদাম, যৈত্রিক (জয়ত্রী) পোস্তা বাদাম, আলু বোখারার, চিনা বাদাম, কালিজিরা, ধনে কিশমিশ ইত্যাদিরও প্রয়োজন আছে।

এবার, ঈদ-উল-আযহার এসব মসলাগুলো যে দামে পাবেন তা জেনে রাখুন। প্রতি দশ গ্রাম এলাচ ১৪ টাকা থেকে ১৬ টাকা, দারুচিনি প্রতি ১০০ গ্রাম ২৮ টাকা থেকে ৩০ টাকা, লবঙ্গ প্রতি ১০০ গ্রাম ৭০ টাকা থেকে ৮০ টাকা, গোল মরিচ ও প্রায় সমান দামেই পাচ্ছেন। জিরা পাচ্ছেন প্রতি কেজি ৪০০ টাকা থেকে ৪৫০ টাকা দরে। জয়ত্রী প্রতি ১০০ গ্রাম ২২০ টাকা থেকে ২৫০ টাকা। ধনে প্রতি ১০০ গ্রাম ১৭ থেকে ১৮ টাকা। কাঠবাদাম প্রতি ১০০ গ্রাম ৭৫ থেকে ৮০ টাকা। পোস্তবাদাম প্রতি ১০০ গ্রাম ১৪০ থেকে ১৫০ টাক। উৎকৃষ্টমানের পোস্ত বাদামের দাম আরও বেশি। প্রতি ১০০ গ্রাম ১৮০ টাকা থেকে ২০০ টাকা পর্যন্ত। আর কিশমিশ পাচ্ছেন প্রতি ১০০ গ্রাম ৩০ টাকা থেকে ৩৫ টাকার মধ্যে। আর আলু বোখারা পাচ্ছেন প্রতি ১০০ গ্রাম ৬০ টাকা থেকে ৭০ টাকার মধ্যে।