২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

ব্যাংকিং ধারণা পাল্টে দিয়েছে গ্রামীণ ব্যাংক

স্টাফ রিপোর্টার, চট্টগ্রাম অফিস ॥ গ্রামীণ ব্যাংক সৃষ্টি ও এর পথচলার ইতিহাস ধরে রাখতে চট্টগ্রামের হাটহাজারীর সেই জোবরা গ্রামে প্রতিষ্ঠা করা হয়েছে ‘জোবরা গ্রামীণ জাদুঘর এবং আর্কাইভ।’ শনিবার এই আর্কাইভ উদ্বোধন করেন গ্রামীণ ব্যাংকের প্রতিষ্ঠাতা নোবেল বিজয়ী অর্থনীতিবিদ ড. মুহাম্মদ ইউনূস।

ড. ইউনূস তার উদ্বোধনী বক্তব্যে বলেন, একটি আইডিয়া-ই পৃথিবীতে অনেক কিছু পাল্টে দিতে পারে। গ্রামীণ ব্যাংক পৃথিবীর ব্যাংকিং জগতের ধ্যান-ধারণা পাল্টে দিয়েছে। এ ব্যাংকের সঙ্গে আর কোন ব্যাংকের মিল হয় না। গ্রামীণ ব্যাংকের ঋণের চেয়ে সঞ্চয়ের পরিমাণ বহুগুণ বেশি। এ সঞ্চয় গরিব নারীদের সঞ্চয়। গরিব মানুষও যে সঞ্চয় করতে পারে এ ধারণাই পৃথিবীতে ছিল না। গ্রামীণ ব্যাংকই সঞ্চয়ের মাধ্যমে দেশের গরিব মানুষদের সঞ্চয়ের শিক্ষা দিয়েছে। আর সে কারণেই পৃথিবীর দেশে দেশে বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে গ্রামীণ ব্যাংক নিয়ে গবেষণা হচ্ছে।

হাটহাজারীর জোবরা গ্রাম থেকে যাত্রা শুরু করেছিল সারাবিশ্বে আলোচিত গ্রামীণ ব্যাংক। আর সে কারণেই জাদুঘর ও আর্কাইভ স্থাপনের জন্য বেছে নেয়া হয়েছে সেই জোবরা গ্রামকে। গ্রামীণ ব্যাংকের এ আয়োজনে স্বাগত বক্তব্য রাখেন ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক এএসএম মহিউদ্দিন। স্মৃতিচারণ করেন ব্যাংকের সদস্য রিজিয়া বেগম এবং সাবেক ব্যবস্থাপনা পরিচালক নুরজাহান বেগম। গ্রামীণ ব্যাংক কর্মকর্তা কাজী আলাউদ্দিনের উপস্থাপনায় অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন ইস্ট ডেল্টা ইউনিভার্সিটির উপাচার্য অর্থনীতিবিদ প্রফেসর মু. সিকান্দার খান। উপস্থিত ছিলেন দৈনিক আজাদী সম্পাদক এমএ মালেক, ইউনূস সুহৃদ চট্টগ্রামের সাধারণ সম্পাদক ফারুক-ই-আজম বীরপ্রতীক এবং চট্টগ্রামের বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ।

ড. মুহাম্মদ ইউনূস বলেন, গ্রামীণ ব্যাংক এমন একটি ধারণা যা নিয়ে মানুষের আগ্রহ কখনই কমবে না। বরং দিন দিন বাড়বে।