২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

ম্যানসিটিকে মাটিতে নামল ওয়েস্টহ্যাম

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ যেন আকাশে উড়ছিল ম্যানচেস্টার সিটি। ইংলিশ প্রিমিয়ার লীগের নতুন মৌসুমে প্রথম পাঁচ ম্যাচেই জয় পায় দলটি। টানা ছয় জয়ের লক্ষ্যে শনিবার নিজেদের মাঠে নেমেছিল ম্যানুয়েল পেলেগ্রিনির দল। কিন্তু এবার তাদের জয়যাত্রা থামিয়ে মাটিতে নামিয়েছে সেই ওয়েস্টহ্যাম ইউনাইটেড। যাদের কাছে বরাবরই খাবি খায় সিটি! ইতিহাদ স্টেডিয়ামে দুর্দান্ত খেলে অতিথি ওয়েস্টহ্যাম ২-১ গোলে হারায় স্বাগতিক ম্যানসিটিকে।

পরশুর অন্য ম্যাচে ওয়েস্টব্রুমউইচ ১-০ গোলে এ্যাস্টন ভিলাকে, বার্নমাউথ ২-০ গোলে সান্ডারল্যান্ডকে ও ওয়াটফোর্ড ২-১ গোলে পরাজিত করে নিউক্যাসল ইউনাইটেডকে। স্টোক সিটি-লিচেস্টার সিটি ম্যাচ ২-২ গোলে ও সোয়ানসি সিটি-এভারটনের ম্যাচ গোলশূন্য ড্র হয়। একের পর এক পরাশক্তিকে হারিয়ে ইপিএলে পয়েন্ট তালিকার দুই নম্বরে উঠে এসেছে ওয়েস্টহ্যাম। ছয় ম্যাচে তাদের ভা-ারে জমা ১২ পয়েন্ট। সমান ম্যাচে ১৫ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষস্থান ধরে রেখেছে ম্যানসিটি। পরশুর ম্যাচে জয় পেলে দ্বিতীয় স্থানে থাকা দলটির চেয়ে ছয় পয়েন্ট এগিয়ে যেতে পারত সাবেক চ্যাম্পিয়নরা।

এর আগেই আর্সেনাল ও লিভারপুলকে হারিয়েছে ওয়েস্টহ্যাম। এবার ম্যানসিটিকে মাটিতে নামিয়ে দলটি বড় কিছুরই ইঙ্গিত দিল। লীগের প্রথম ম্যাচে তারা আর্সেনালকে ২-০ ব্যবধানে হারানোর পর চতুর্থ ম্যাচে লিভারপুলকে হারায় ৩-০ গোলে। জায়ান্ট কিলারে পরিণত হওয়া দলটি পুরো ম্যাচেই দুর্দান্ত নৈপুণ্য প্রদর্শন করে যোগ্যতর হিসেবেই জয় পেয়েছে। বিশেষ করে প্রথমার্ধে অসাধারণ খেলে ওয়েস্টহ্যাম। বিরতির পর দুই গোলে পিছিয়ে থাকা সিটি মুহুর্মুহু আক্রমণ শাণিয়েও সফল হয়নি অতিথি গোলরক্ষক আদ্রিয়ানের কারণে। ওয়েস্টহ্যামের দুই গোলদাতা ভিক্টর মোসেস ও ডিয়াফ্রো শাখোর পাশাপাশি ম্যাচে নায়ক বনে যান দলটির গোলরক্ষকও। লীগের প্রথম পাঁচ ম্যাচে শতভাগ সাফল্য নিয়ে ঘরের মাঠ ইতিহাদ স্টেডিয়ামে খেলতে নামে সিটি। আগের ম্যাচগুলোতে ১১ গোল করা দলটি এই ম্যাচেও শুরুতেই এগিয়ে যাওয়ার সুযোগ পেয়েছিল। কিন্তু পঞ্চম মিনিটে ব্রাজিলিয়ান মিডফিল্ডার ফার্নান্ডিনহোর সোজাসুজি হেড সহজেই রুখে দেন ওয়েস্টহ্যাম গোলরক্ষক। পরের মিনিটেই দূরপাল্লার শটে স্বাগতিকদের হতবাক করে দেন নাইজিরিয়ার মিডফিল্ডার মোসেস। ২০ গজ দূর থেকে তার জোরালো কোনাকুনি শটটি পোস্টের কোল ঘেঁষে জালে জড়ায়। চলমান মৌসুমে লীগে সিটির জালে এটাই প্রথম গোল।

পিছিয়ে পড়ার পর সমতা ফেরাতে মরিয়া হয়ে ওঠে সিটি। কিন্তু খেলার ধারার বিপরীতে ৩১ মিনিটে ওয়েস্টহ্যামকে দুই গোলে এগিয়ে নেন শাখো। কর্ণার কিক থেকে বল সিটির ডি বক্সে আসলে জটলার মধ্যে টোকা দিয়ে গোল করেন সেনেগালের এই স্ট্রাইকার। এই গোলের পরই মূলত সিটির প্রথম হার নিশ্চিত হয়ে যায়। শেষ পর্যন্ত সেটাই হয়েছে। প্রথমার্ধের যোগ করা সময়ে একটি গোল পরিশোধ করে ম্যাচে ফেরার সম্ভাবনা জাগায় সিটি। সার্জিও এ্যাগুয়েরোর বাড়ানো বল ধরে ২০ গজ দূর থেকে জোরালো শটে লক্ষ্যভেদ করেন এই মৌসুমেই জার্মান ক্লাব উলফসবার্গ থেকে ইতিহাদের দলটিতে যোগ দেয়া কেভিন ডি ব্রুইনে। বিরতির পর পরাজয় এড়াতে প্রাণপণ চেষ্টা করতে থাকে সিটি। কিন্তু একের পর এক সুযোগ নষ্ট করে গোলবঞ্চিত থাকে পেলেগ্রিনির দল।

দ্বিতীয়ার্ধের পুরোটা সময় ওয়েস্টহ্যামের জাল অক্ষত রাখেন স্প্যানিশ গোলরক্ষক আদ্রিয়ান। অসাধারণ কয়েকটি সেভ করে দলকে দারুণ জয় পাইয়ে দেন তিনি। হারের পরও দলের খেলায় সন্তোষ প্রকাশ করেন সিটি কোচ ম্যানুয়েল পেলেগ্রিনি। ম্যাচ শেষে তিনি বলেন, আমরা দ্বিতীয়ার্ধে অনেক ভাল খেলেছি। কিন্তু ওয়েস্টহ্যামের গোলরক্ষক অসাধারণ খেলেছে।

ওয়েস্টহ্যাম কোচ সøাভেন বিলিচ বলেন, আমরা যেভাবে খেলেছি তাতে জয় আমাদেরই প্রাপ্য ছিল। আমাদের মূল লক্ষ্য, গোটা মৌসুমে এই ধারাবাহিকতা ধরে রাখা।