১৮ ডিসেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

অস্ট্রেলিয়ার সফর অনিশ্চয়তায় বিএনপির উদ্বেগ

স্টাফ রিপোর্টার ॥ নিরাপত্তার প্রশ্নে অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট দলের বাংলাদেশ সফর নিয়ে সৃষ্ট অনিশ্চয়তায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছে বিএনপি। একই সঙ্গে ক্রিকেটপ্রেমী হিসেবে দুঃখও পেয়েছে। দলটি বলেছে, সরকারের মন্ত্রী ও ক্ষমতাসীন দলের নেতারা এত দিন দেশে জঙ্গিবাদ নিয়ে যে প্রপাগান্ডা চালিয়েছেন, এর ফলে বাংলাদেশ সম্পর্কে বহির্বিশ্বে আস্থাহীনতার সৃষ্টি করেছে।

আজ সোমবার দুপুরে রাজধানীর নয়াপল্টনে কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে বিএনপির দলের মুখপাত্র আসাদুজ্জামান রিপন এক সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন। এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন বিএনপির চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ইনাম আহমেদ চৌধুরী, দলের ভাইস চেয়ারম্যান চৌধুরী কামাল ইবনে ইউসুফ, কেন্দ্রীয় নেতা হাবিবুর রহমান হাবিব, সানাউল্লাহ মিয়া, আবদুস সালাম আজাদ প্রমুখ।

বিএনপির মুখপাত্র বলেন, আমরা শুরু থেকে বলে আসছি, জঙ্গিবাদ নিয়ে যে প্রপাগান্ডা চালানো হচ্ছে, তা একপর্যায়ে দেশের ভাবমূর্তি ক্ষতিগ্রস্ত করবে এবং বাস্তবে হয়েছেও তাই। নিরাপত্তার প্রশ্নে অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট দলের সফর স্থগিতে তার প্রভাব পড়েছে বলে বিএনপি মনে করে।

এ বিষয়ে সরকারের স্বরাষ্ট্র ও বাণিজ্যমন্ত্রীর বক্তব্যের উল্লেখ করে আসাদুজ্জামান রিপন বলেন, বাংলাদেশে জঙ্গিবাদের কোনো অস্তিত্ব নেই— বলে সরকারের স্বরাষ্ট্র ও বাণিজ্যমন্ত্রী যে পর্যবেক্ষণ দিয়েছেন, আমাদের দল এর সঙ্গে ভিন্নমত পোষণ করে না। তবে তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনুসহ সরকারের কয়েকজন মন্ত্রী ও ক্ষমতাসীন দলের নেতারা যে এত দিন দেশে জঙ্গিবাদের জিকির তুলেছিলেন, তার ফলশ্রুতিতে বাংলাদেশ সম্পর্কে আস্থাহীনতা সৃষ্টি হয়েছে।

রিপন বলেন, নিরাপত্তার প্রশ্নে এ সফর অনিশ্চিত হওয়ার বিষয়টি আমাদের উদ্বিগ্ন করেছে। বাংলাদেশে উগ্রবাদ ও জঙ্গিবাদের কোনো তৎপরতা নেই। এর কোনো বাস্তব প্রেক্ষিত আছে বলে বিএনপি মনে করে না।’ তিনি বলেন, বাংলাদেশের মানুষ ক্রিকেটকে ভালোবাসে। অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট দলকে স্বাগত জানানোর জন্য বাংলাদেশ মানুষ অধীন আগ্রহে অপেক্ষা করছে।

বিএনপির এই নেতা সরকারকে সতর্ক করে দিয়ে বলেন, জঙ্গিবাদের প্রচারণায় বহির্বিশ্বে বাংলাদেশ সম্পর্কে যে নেতিবাচক ধারণা সৃষ্টি হয়েছে, সে ব্যাপারে সরকার সতর্ক থাকবে এবং নিরাপত্তা নিয়ে কেবল বিদেশিদের নয়, দেশের মানুষকেও আশ্বস্ত করবে সরকার।

সংবাদ সম্মেলনে পবিত্র হজ পালনকালে মিনায় পদদলিত হয়ে নিহত হাজিদের বিদেহী আত্মার মাগফিরাত কামনা করা হয়।