২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

বাইডেনের প্রার্থিতা রুখতে তৎপর হিলারি শিবির

  • ডেমোক্র্যাট ও চাঁদাদাতাদের পক্ষে টানতে ই-মেইল, ফোন কল

মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ডেমোক্র্যাটিক পার্টির প্রধান মনোনয়ন প্রত্যাশী হিলারি ক্লিনটন ভাইস-প্রেসিডেন্ট জোসেফ আর বাইভেন জুনিয়রকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করা থেকে ঠেকানোর চেষ্টা চালাচ্ছে। জো-বাইডেনের চ্যালেঞ্জ হিলারির জন্য হুমকি হয়ে দেখা দিতে পারে বলে ক্রমশ উদ্বিগ্ন হিলারি শিবির বাইডেনের প্রতিদ্বন্দ্বিতার পথে প্রতিবন্ধকতা দাঁড় করাতে হঠাৎ জরুরী তৎপরতা শুরু করেছে। খবর নিউইয়র্ক টাইমস।

ভাইস-প্রেসিডেন্টের কাছ থেকে চ্যালেঞ্জ আসার সম্ভাবনা নিয়ে কয়েক মাস ধরেই সন্দেহ ব্যক্ত করে এসেছিল হিলারি শিবির। কিন্তু এখন সেই শিবিরের কর্মীরা বাইডেনের প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নেমে আসাকে এক গুরুতর সম্ভাবনা বলে দেখছেন এবং পার্টির সংগঠন ও এর চাঁদাদাতাদের হিলারির পক্ষে টানার চেষ্টা করছেন। তারা অপ্রতিশ্রুতিবদ্ধ ডেমোক্র্যাটদের কাছে অসংখ্য ই-মেইল এবং ফোন কল পাঠিয়েছেন এবং একটি চিঠিতে সই দিতে তাদের প্রতি অনুরোধ জানিয়েছেন। ঐ চিঠিতে ২০১৬ সালের ডেমোক্র্যাটিক ন্যাশনাল কমিটি কনভেনশনে ডেলিগেট ভোট দিয়ে হিলারি ক্লিনটনকে সমর্থন করার প্রতিশ্রুতি দিতে ডেমোক্র্যাটদের অনুরোধ জানানো হয়। এ শনিবার বাইডেন যুক্তরাষ্ট্রের সবচেয়ে প্রভাবশালী সমকামী ও লেসবিয়ান রাজনৈতিক গ্রুপ হিউম্যান রাইটস ক্যাম্পেনের বার্ষিক অনুষ্ঠানে প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত থাকবেন। এর কয়েক ঘণ্টা আগে হিলারি একই গ্রুপের সঙ্গে প্রাতঃরাশ করবেন। আর আগামী মঙ্গলবার সাবেক প্রেসিডেন্ট বিল ক্লিনটন ‘দ্য লেট শো উইথ স্টিফেন কলবার্ট’ টকশোতে অবতীর্ণ হবেন। এর আগে বাইডেন সেই অনুষ্ঠানে আবেগঘন জোরালো বক্তব্য রাখেন। এর ভাইরাল ভিডিও ডেমোক্র্যাটিক পার্টির কোন কোন সদস্যের মধ্যে ছড়িয়ে পড়ে।

বাইডেন প্রার্থী হবেন কিনা তা নিয়ে তার অনুগত সমর্থকরাও আঁচ-অনুমানের মধ্যে রয়েছেন। কিন্তু হিলারি শিবির ঝুঁকি নিচ্ছে না। বাইডেন প্রতিদ্বন্দ্বিতায় এলে যেসব দুর্বলতা দেখা দিতে পারে তা নিয়ে হিলারি শিবির এক সূক্ষ্ম সমালোচনার জাল বিস্তার করছে। ঐ শিবিরের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ ছিলেন এমন কয়েকজন ডেমোক্র্যাট বলছেন, তাঁরা বাইডেনের প্রার্থী হওয়ার সম্ভাবনাকে হিলারির উপদেষ্টারা আবার গুরুত্বের সঙ্গে নিচ্ছেন বলে দেখতে পান।

গত সপ্তাহে এর সবচেয়ে স্পষ্ট আভাস দেখা যায়। তখন হিলারি ও তার দু’শীর্ষ উপদেষ্টা হুমা আবেদিন ও জন পডেস্টা ডেমোক্র্যাটিক পার্টির বড় চাঁদাদাতা ব্যাংকার রবার্ট ওলফকে কয়েকবার ফোন করেন। ওলফ এখন হিলারিকে সমর্থন করছেন, কিন্তু তিনি সম্প্রতি ঘরোয়াভাবে বাইডেনের সঙ্গে দেখা করেন।