২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

কুন্দুজে ক্লিনিকে মার্কিন বিমান হামলায় তিন স্টাফ নিহত

আফগানিস্তানের উত্তরাঞ্চলীয় শহর কুন্দুজে মেডিসিনস সানস ফ্রন্টিয়ার্সের (এমএসএফ) পরিচালিত ক্লিনিকে শনিবার মার্কিন বিমান হামলায় তিনজন নিহত হয়েছে। ন্যাটো জোটের এক মুখপাত্র এই হামলার কথা স্বীকার করে বলেছেন, ওই ক্লিনিকে মার্কিন বিমান হামলা চালিয়ে থাকতে পারে। খবর বিবিসির।

এমএসএফ বলেছে, আফগান স্থানীয় সময় শুক্রবার দিবাগত রাত ২টা ১০মিনিটের দিকে কয়েকবার বিমান হামলা চালানো হয়েছে। হামলার সময় হাসপাতালে ১০৫ জন রোগী ছিল। নিহতরা হাসপাতাল কর্মী এবং তাদের ৩০জন স্টাফ এখনও নিখোঁজ রয়েছে। বিমান হামলায় ট্রমা সেন্টারটি আংশিক ধসে গিয়েছে। তালেবান যোদ্ধারা সোমবার কুন্দুজ শহরটি দখল করে নেয়ার পর থেকে সেখানে ব্যাপক সংঘর্ষ চলছে। ২০০১ সালে আফগানিস্তানের ক্ষমতা থেকে হটিয়ে দেয়ার পর সোমবার প্রথমবারের মতো একটি প্রাদেশিক রাজধানী দখল করে নেয় তালেবান যোদ্ধারা। তারপর থেকে যুক্তরাষ্ট্রের বিমান হামলার সহায়তায় আফগান বাহিনীগুলো দু’দিন ধরে শহরটি পুনর্দখলের চেষ্টা করছে। আফগানিস্তানে মার্কিন বাহিনীর মুখপাত্র কর্নেল ব্রিয়ান ট্রিবাস বলেন, মার্কিন বাহিনীর উপর পৃথক হামলার হুমকির প্রেক্ষিতে স্থানীয় সময় শনিবার রাত ২টা ১৫ মিনিটে কুন্দুজ শহরে একটি বিমান হামলা চালানো হয়। এতে পাশের একটি ক্লিনিক ক্ষতিগ্রস্ত হয়ে থাকতে পারে। এই ঘটনার তদন্ত করা হচ্ছে। এমএসএফের অপারেশনস ডিরেক্টর বার্ট জ্যানসেন্স এক বিবৃতিতে বলেছেন, এই হামলার ঘটনায় আমরা গভীরভাবে মর্মাহত। কুন্দুজের এক স্বাস্থ্যকেন্দ্রে মার্কিন বিমান হামলায় আমাদের স্টাফ ও রোগী নিহত হয়েছে এবং ভবনের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। এই হাসপাতালে আহতদের চিকিৎসা দেয়া হয়। তালেবানের মুখপাত্র জাবিউল্লাহ মুজাহিদ বলেছেন, হাসপাতাল লক্ষ্য করে এবং রোগী, চিকিৎসক ও নার্সদের হত্যা করতেই মার্কিন বিমান হামলা চালানো হয়েছে। হাসপাতালে আমাদের কোন যোদ্ধা চিকিৎসাধীন ছিল না।

স্পেনে এগারো জঙ্গীর কারাদণ্ড

স্পেনের বিচারকরা শুক্রবার ইসলামিক স্টেট (আইএস) সন্ত্রাসীদের সঙ্গে সম্পৃক্ত এক দলের সদস্য হওয়ার দায়ে ১১ জঙ্গীকে কারাদ- দিয়েছেন। সিরিয়ায় আত্মঘাতী বোমা হামলার জন্য যোদ্ধা সংগ্রহের অভিযোগ প্রমাণিত হয়েছে জঙ্গীদের বিরুদ্ধে। খবর এএফপির।

তাদের বিরুদ্ধে সিরিয়ায় বেশ কয়েকজন জঙ্গী পাঠানোর অভিযোগ প্রমাণিত হলে প্রত্যেককে ১০ থেকে ১২ বছরের কারাদ- দিয়েছেন বিচারকরা। এদের মধ্যে কয়েকজন আত্মঘাতী হামলায় নিহত হয়েছে। মাদ্রিদের ন্যাশনাল কোর্ট এ কথা জানিয়েছে। আদালত জানায়, উত্তর আফ্রিকায় স্পেনের ছিটমহল সিউটাভিত্তিক এ জঙ্গীদল ২০১২-এর এপ্রিল ও ২০১৩-এর জুনের মধ্যে কমপক্ষে ২৮ জন যোদ্ধা পাঠিয়েছে সিরিয়ায়। তাদের পাঠানো অন্তত ৮ জঙ্গী সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডে নিহত হয়েছে এবং ঐ সকল সন্ত্রাসী হামলায় নিহত হয়েছে কয়েক শ’ লোক। আদালত করিম আরদেন সেলাম মোহামেদ ও ইসমাইল আরদেল লতিফ আশ লালকে ১২ বছর করে কারাদ- দিয়েছে। একটি সন্ত্রাসী সংগঠনের নেতৃত্ব দেয়ার অভিযোগে তাদের দোষী সাব্যস্ত করা হয়েছে।