১৬ ডিসেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

সিরাজগঞ্জে বিএনপি নেতার জামিন নামঞ্জুর

  • ট্রেন পোড়ানো মামলা

স্টাফ রিপোর্টার, সিরাজগঞ্জ ॥ ২০১০ সালে সিরাজগঞ্জের আলোচিত ট্রেন পোড়ানো মামলায় হাজিরা দেয়ার পর জামিন না মঞ্জুর করে জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক ও সাময়িক বরখাস্তকৃত পৌর মেয়র এ্যাডভোকেট মোকাদ্দেস আলীকে জেলহাজতে প্রেরণের নির্দেশ দিয়েছে আদালত। সোমবার দুপুরে সিরাজগঞ্জ স্পেশাল ট্রাইব্যুনাল আদালতের বিচারক মোঃ জাফরোল হাছান এ আদেশ দেন।

আসামি পক্ষের আইনজীবী মীর রুহুল আমিন বাবু জানান, ২০১০ সালের ১১ অক্টোবর সদর উপজেলার সয়দাবাদ এলাকার মূলিবাড়ি রেল ক্রসিংয়ের কাছে তৎকালীন বিরোধীদলীয় নেত্রী ও বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়ার জনসভা চলাকালে ট্রেনের ধাক্কায় ৭ জন নিহত হয় এবং ট্রেনে অগ্নিসংযোগের ঘটনা ঘটে।

মুন্সীগঞ্জে কোটি টাকার কৃষি ঋণ বিতরণ

স্টাফ রিপোর্টার, মুন্সীগঞ্জ ॥ শ্রীনগর উপজেলায় ৭০ কৃষকদের মাঝে এক কোটি টাকার প্রকাশ্যে ঋণ বিতরণ করেছে বাংলাদেশ কৃষি ব্যাংক । সর্বোচ্চ ১ লাখ ৮০ হাজার ও সর্বনিম্ন ৫০ হাজার টাকা হারে বিভিন্ন ধরনের কৃষি কাজের জন্য ৭০ জন কৃষককে এই ঋণ সুবিধা দেয়া হয়েছে। সোমবার দুপুরে শ্রীনগর উপজেলার অডিটরিয়াম মিলনায়তনে প্রকাশ্যে এই ঋণ বিতরণ করা হয়।

উপজেলার শ্রীনগর, হাসাড়া, ষোলঘর ও রাঢ়ীখালের ৪টি শাখা থেকে দেয়া হয়েছে ঋণ সুবিধা। এতে প্রধান অতিথির হিসাবে কৃষকদের হাতে ঋণের এ নগদ অর্থ তুলে দেন স্থানীয় সংসদ সদস্য সুকুমার রঞ্জন ঘোষ। জেলা কৃষি ব্যাংক মুখ্য আঞ্চলিক ব্যবস্থাপক এসএম এ খালেকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ কৃষি ব্যাংকের মহাব্যবস্থাপক পীযুষ চন্দ্র ভাওয়াল, ঢাকা-বিভাগের মহাব্যবস্থাপক ড. মোঃ লিয়াকত হোসেন মোড়লসহ জেলা ও উপজেলার বিভিন্ন কর্মকর্তাবৃন্দ।

মির্জাপুরে মাসহ তিন মেয়েকে পুড়িয়ে হত্যার বছরপূর্তি আজ

নিজস্ব সংবাদদাতা, মির্জাপুর, ৫ অক্টোবর ॥ মির্জাপুরে মাসহ ৩ মেয়েকে পুড়িয়ে হত্যার মঙ্গলবার এক বছর। গত বছর ৬ অক্টোবর মির্জাপুর উপজেলার সোহাগপাড়া গ্রামের মালয়েশিয়া প্রবাসী মজিবরের স্ত্রী হাসনা বেগম (৩০) ও ৩ মেয়ে গোড়াই উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণীর ছাত্রী মরিয়ম আক্তার মনিরা (১৪), বাক প্রতিবন্ধী মলি (১০) এবং শিশু মিমকে (৫) রাতের অন্ধকারে ঘরে পেট্রোল ঢেলে পুড়িয়ে হত্যা করা হয়। স্কুলছাত্রী মনিরাকে বিয়ে দিতে রাজি না হওয়ায় একই গ্রামের বাহারউদ্দিনের ছেলে জাহাঙ্গীর ও তার সহযোগীরা এই নির্মম হত্যা কা-টি ঘটায়। এ ব্যাপারে হাসনা বেগমের ভাই মনিরার মামা একই গ্রামের বাসিন্দা মোফাজ্জল হোসেন মির্জাপুর থানায় মামলা দায়ের করেন। ঘটনার সঙ্গে জড়িত মূলহোতা জাহাঙ্গীর এবং তার চাচাত ভাই নূর মোহাম্মদ নিপুসহ ১৫ জনকে গ্রেফতার করে।