১৭ ডিসেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

আমিরের জাতীয় দলে ফেরা এখনই নয়

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ ঘরোয়া ক্রিকেটে প্রত্যাবর্তনে বল হাতে ঝড় তুলছেন মোহাম্মদ আমির। প্রথম দুই নন-ফার্স্ট ক্লাস ম্যাচে নিয়েছেন ১৭ উইকেট। তবে দুঃসময় পেছনে ফেলে ঘুরে দাঁড়ানো কলঙ্কিত এই তারকাকে এখনই জাতীয় দলে ফেরানোর কথা ভাবছে না পাকিস্তান। দেশটির নির্বাচক বোর্ডের প্রধান হারুন রশীদ এমনটাই বলেছেন। ঘরোয়া ক্রিকেটে আরও কিছুদিন পরখ করার পর তবেই তাকে নিয়ে ভাববেন তারা। পাশাপাশি অফ-ফর্ম সত্ত্বেও টি২০ অধিনায়ক শহীদ আফ্রিদিকে সরিয়ে দেয়ার কোন ইচ্ছাই নেই পিসিবির (পাকিস্তান বোর্ড), সেটিও জানিয়ে দেন রশীদ। ‘জাতীয় দলের জন্য বিবেচনা করার আগে আমিরকে আরও বেশি করে প্রথম শ্রেণীর ম্যাচ খেলতে হবে। মনে রাখতে হবে, আন্তর্জাতিক (আইসিসির) নিষেধাজ্ঞা উঠলেও ও সংশোধন প্রক্রিয়ার মধ্যে রয়েছে। এটা ঠিক বল হাতে দারুণ করছে। তবে মাঠ ও মাঠের বাইরে আমিরকে অনেক কিছু প্রমাণ করতে হবে’- বলেন রশীদ। নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে খেলায় ফেরা প্রতিভাবান পেসার আমির সম্পর্কে খোলামেলা নিজের মনোভাব প্রকশ করেন পাকিস্তানী প্রধান নির্বাচক। রশীদের ধারণা- ফর্মের পাশাপাশি ইমেজ পুনরুদ্ধারের জন্য আমিরকে এখনও অনেক পথ পাড়ি দিতে হবে। এই মুহূর্তে অতদূর না ভেবে তার পর্যবেক্ষণের ওপরই বেশি জোর দিচ্ছে পিসিবি। রশীদ আরও যোগ করেন- ‘এখনই আমিরের জাতীয় দলে ফেরার বিষয়টা চিন্তা করা খুব বেশি আগাম হয়ে যায়।’ শুক্রবার মুলতানে ঘরোয়া ক্রিকেটের এক ম্যাচে ইনিংসে ৭ উইকেট নিলেন আইসিসির নির্বাসন কাটিয়ে ফেরা আলোচিত পাকিস্তানী পেসার। স্থানীয় সাউদার্ন গ্যাস কর্পোরেশনের হয়ে মাঠে নেমে শক্তিধর পাকিস্তান স্টেট ব্যাংকের বিপক্ষে ৬১ রান দিয়ে ইনিংসে ৭ উইকেট শিকার করেন। ম্যাচে তুলে নেন ১০ উইকেট! দুটি ম্যাচে ঝুলিতে ১৭ উইকেট। যেন আরও দুর্ধর্ষ হয়ে ফেরা। সংবাদমাধ্যমে গুঞ্জন উঠলেও তিনি নিজেও প্রধান নির্বাচকের সঙ্গে একমত। ‘এখনই জাতীয় দলে ফেরা আমার লক্ষ্য নয়। ঘরোয়া ক্রিকেটে খেলে আগে পুরোপুরি ছন্দ ফিরে পেতে চাই। তারপর আন্তর্জাতিক ক্রিকেট নিয়ে ভাবব’- বলেন ২৩ বছর বয়সী আমির। ওদিকে ২০ অধিনায়ক শহীদ আফ্রিদির পারফর্মেন্সে পিসিবি মোটেই সন্তুষ্ট নয়- পাকিস্তানী মিডিয়ার এমন খবর উড়িয়ে দিয়েছেন রশীদ। প্রধান নির্বাচক বলেন, ‘আফ্রিদির ফর্ম নিয়ে আমাদের মোটেই ভাবনা নেই। আমরা এখন বরং তরুণদের দিকে তাকিয়ে।’ তিনি আরও বলেন, ‘দলের তরুণ খেলোয়াড়দের বর্তমান ফর্মে বোর্ড খুবই সন্তুষ্ট।’ সব কিছুই আফ্রিদির নেতৃত্বে হচ্ছে উল্লেখ করে তিনি আরও বলেন, ‘টি২০ সিরিজে ইমাদ ওয়াসিমের পারফর্মেন্স ছিল অসাধারণ।