১৬ ডিসেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

৫ দিনব্যপী ব্যাংকিং মেলা শুরু ২৪ নবেম্বর

অর্থনৈতিক রিপোর্টার ॥ ‘একটি ব্যাংকিং জাতি গড়ার প্রত্যয়ে’ সেøাগানে চলতি বছরের ২৪ নবেম্বর শুরু হবে ৫ দিনব্যপী ব্যাংকিং মেলা। চলবে ২৮ নবেম্বর পর্যন্ত। বাংলা একাডেমি মিলনায়তন ও প্রাঙ্গণে মেলা চলবে প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত। মেলায় দেশে কার্যরত ৫৬টি ব্যাংকের অংশগ্রহণ করার কথা রয়েছে। ব্যাংকিং সেবাদানকারী মোবাইল অপারেটরাও অংশগ্রহণ করবে। চাইলে আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোও মেলায় স্টল বরাদ্দ নিতে পারবে। অংশগ্রহণের জন্য ব্যাংকগুলোকে ন্যূনতম পরিমাণে স্টল ফি দিতে হবে। বুধবার দুপুরে বাংলাদেশ ব্যাংকে সংবাদ সম্মেলন কক্ষে এ কথা জানিয়েছেন ব্যাংকটির প্রধান অর্থনীতিবিদ বীরূপাক্ষ পাল। এ সময় কেন্দ্রীয় ব্যাংকের অন্য কর্মকর্তারাও উপস্থিত ছিলেন।

সংবাদ সম্মেলনে বীরূপাক্ষ পাল বলেন, প্রযুক্তির বিকাশে ব্যাংকিং খাতকে জনগণের দোরগোড়ায় পৌঁছানো, আর্থিক অন্তর্ভুক্তিকে আরও বেগবান করা, তরুণ প্রজন্মকে ব্যাংকিং খাতের সঙ্গে অন্তর্ভুক্ত করতেই এই মেলার আয়োজন করা হবে। দেশে প্রথমবারের মতো এই মেলা উপলক্ষে সম্মেলনে উপস্থিত সাংবাদিকদের পরামর্শও চান বীরূপাক্ষ পাল। তিনি আরও বলেন, জিডিপির ৪০ শতাংশ নিয়ন্ত্রণ করে ব্যাংকিং খাত। মেলার মাধ্যমে ব্যাংকিং কর্মকা-ে বিদ্যমান সমন্বয়হীনতা দূর করা সম্ভব হলে জিডিপিতে অবদান আরও বাড়বে। তিনি বলেন, ব্যাংকিং পণ্য ও সেবা সম্পর্কে সাধারণ মানুষকে সচেতন করা, ব্যাংকের আর্থিক শিক্ষা কার্যক্রম জাতীয় পর্যায়ে তুলে ধরা ব্যাংকিং খাত, পণ্য ও সেবা সম্পর্কে প্রচার করা, গ্রাহকের কাছে সেবাধর্মী প্রতিষ্ঠান হিসেবে তুলে ধরা, আর্থিক অন্তর্ভুক্তি নিশ্চিত করা, তরুণ ও যুব সমাজকে ব্যাংকমুখী করাই মেলার লক্ষ্য ও উদ্দেশ্যে।

মেলায় বাংলাদেশ ব্যাংকের আর্থিক শিক্ষা, টাকা জাদুঘর, বাংলাদেশ সিকিউরিটি প্রিন্টিং প্রেস (টাকা বানানোর মেশিন), বিভিন্ন প্রকাশনা, স্মারক মুদ্রা ও নোট ক্রয়, জনসাধারণকে সেবা, সিআইপিসি, অভিযোগ কেন্দ্র খোলা হবে। প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে বেলা ১টা পর্যন্ত আর্থিক শিক্ষা কর্মসূচীর আওতায় স্কুলগামী শিক্ষার্থীদের নিয়ে দুইদিন, কর্মজীবী শিশুদের নিয়ে একদিন, উন্মুক্ত উপস্থিতদের নিয়ে একদিন ও ভালনারেবল এডাল্টদের নিয়ে আর্থিক শিক্ষা বিষয়ক কর্মসূচী পালন করা হবে।