২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

চীনাদের স্বপ্ন ভাঙলেন জোকোভিচ

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ চীনে চলছে চায়না ওপেন। যেখানে পারফর্মেন্স করছেন স্বাগতিক দেশের শীর্ষ তারকা জ্যাং জি। কিন্তু খুব বেশিদূর এগোতে পারলেন না তিনি। বিশ্ব টেনিস র‌্যাঙ্কিংয়ের নাম্বার ওয়ান তারকা নোভাক জোকোভিচই চায়নিজদের স্বপ্ন ভেঙ্গে চুরমার করে দিলেন। বুধবার দ্বিতীয় পর্বে সার্বিয়ার জোকোভিচ ৬-২ এবং ৬-১ গেমে হারান স্বাগতিক দেশের জ্যাং জিকে। চীনের এক নাম্বার আর বিশ্ব টেনিস র‌্যাঙ্কিংয়ের ২১৯ নাম্বারে থাকা জ্যাং জিকে হারাতে জোকোভিচ সময় নিয়েছেন ৫৫ মিনিট। আর এই জয়ের ফলে টানা ২৬ ম্যাচ জয়ের রেকর্ড গড়লেন সার্বিয়ান তারকা। সেইসঙ্গে জিমি কনর্সের রেকর্ডেও ভাগ বসালেন তিনি। একই টুর্নামেন্টে দুজনেরই টানা ২৬ ম্যাচ করে জয়ের রেকর্ড এখন তাদের দখলে। আর তাদের উপরে আছেন কেবল রাফায়েল নাদাল। স্প্যানিশ এই টেনিস তারকা ৩১ ম্যাচ জিতে সবার উপরে অবস্থান করছেন। ফ্রেঞ্চ ওপেনে এই রেকর্ড তার। সার্বিয়ান তারকা জোকোভিচ বছরের শেষ গ্র্যান্ডসøাম টুর্নামেন্ট ইউএস ওপেন জিতেই চায়না ওপেনে খেলতে নামেন। এই বছরের পুরোটা সময়ই টেনিস কোর্টে প্রতিপক্ষের জন্য অপ্রতিরোধ্য হয়ে কোর্টে নামেন তিনি। টেনিস র‌্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষে থেকেই গত বছর শেষ করেছিলেন নোভাক জোকোভিচ। আর চলতি বছরের শুরুটাও করেন দারুণভাবে। মৌসুমের প্রথম গ্র্যান্ডসøাম টুর্নামেন্ট অস্ট্রেলিয়ান ওপেন জিতে। এখানেই থেমে থাকেননি তিনি। দুর্দান্ত খেলে ফ্রেঞ্চ ওপেনের ফাইনালের টিকেট কাটেন তিনি। কিন্তু দুর্ভাগ্য এই সার্বিয়ান তারকার। সুইজারল্যান্ডের স্টানিসøাস ওয়ারিঙ্কার কাছে হেরে স্বপ্নভঙ্গ হয় তার। পরাজয় থেকে শিক্ষা নিয়েই এগিয়ে যান জোকোভিচ। জিতে নেন উইম্বল্ডনের শিরোপাও। এরপর বছরের শেষ মেজর টুর্নামেন্টেও নিজের জাত চেনান তিনি। ফ্রেঞ্চ ওপেনে ওয়ারিঙ্কার কাছে না হারলে একই বছরে সব গ্র্যান্ডসøাম জয়ের অবিস্মরণীয় কীর্তি গড়ার সুযোগ ছিল তার। যে সুযোগের দ্বারপ্রান্তে গিয়ে হাতছাড়া করেছেন মহিলা এককের শীর্ষ তারকা সেরেনা উইলিয়ামসও। ক্যালেন্ডার সøাম জিততে না পারলেও নিজের পারফর্মেন্সে সন্তুষ্ট জোকোভিচ। এই চায়না ওপেনে প্রথমবারের মতো নিজের ভাইয়ের সঙ্গে জুটি বেঁধে খেলছেন তিনি। যা নিজেকে পরিপূর্ণ করেছে বলে দাবি করেছেন নাম্বার ওয়ান এই তারকা।