২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

অগণতান্ত্রিক শক্তির বিরুদ্ধে আন্দোলনের বিকল্প নেই ॥ খালেদা জিয়া

স্টাফ রিপোর্টার ॥ অগণতান্ত্রিক শক্তির বিরুদ্ধে আন্দোলনের কোন বিকল্প নেই বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়া। ‘জেহাদ দিবস’ উপলক্ষে শুক্রবার গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে তিনি এ কথা বলেন। উল্লেখ্য, ১৯৯০ সালের ১০ অক্টোবর স্বৈরাচারবিরোধী আন্দোলনে নিহত হন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রনেতা নাজির উদ্দিন জেহাদ। এরপর থেকে বিভিন্ন রাজনৈতিক ও সামাজিক সংগঠন এ দিনটিকে জেহাদ দিবস হিসেবে পালন করছে।

খালেদা জিয়া বলেন, স্বৈরাচারবিরোধী আন্দোলনের নির্ভীক সৈনিক শহীদ নাজির উদ্দিন জেহাদের স্মৃতির প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানিয়ে খালেদা জিয়া বলেন, জেহাদের রক্ত স্রোতের ধারা বেয়েই সংঘটিত হয় গণঅভ্যুত্থান, পতন হয় স্বৈরশাসক এরশাদের। বহুদলীয় গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে সামরিক শাসনবিরোধী আন্দোলনে একটি অবিস্মরণীয় নাম নাজির উদ্দিন জেহাদ। নব্বইয়ের স্বৈরাচারবিরোধী গণআন্দোলনে অগ্রণী ভূমিকা পালন করতে গিয়ে শাহাদাতবরণ করেন এই অকুতোভয় ছাত্রনেতা। তার রক্ত স্রোতের ধারা বেয়ে ওই বছরই সংঘটিত হয় গণঅভ্যুত্থান, পতন হয় স্বৈরশাসক এরশাদের।

খালেদা জিয়া বলেন, নির্বাচিত সরকারকে উচ্ছেদ করে জেনারেল এরশাদ ক্ষমতা দখল করেন ১৯৮২ সালের ২৪ মার্চ। গণতন্ত্রকে পুনর্প্রতিষ্ঠার দৃঢ়প্রত্যয় নিয়েই জেহাদ নিজের জীবন উৎসর্গ করেছিলেন। আমরা তার আরাধ্য স্বপ্নকে বাস্তবায়ন করতে না পারলে তার ত্যাগ অস্বীকৃত হবে। তিনি বলেন, গণতান্ত্রিক প্রতিষ্ঠানসমূহকে রক্ষা এবং তাকে বিকশিত করতে আমাদের আরও সংগ্রাম করতে হবে। মানুষের স্বাধীনতা ও মৌলিক অধিকার নিশ্চিত করতে জনগণের ক্ষমতায়নের লক্ষ্যে রাষ্ট্র ও সমাজের সকল স্তরে অগণতান্ত্রিক অপশক্তির বিরুদ্ধে আন্দোলনের কোন বিকল্প নেই।

বিএনপির মুখপাত্র ড. আসাদুজ্জামান রিপন স্বাক্ষরিত বিবৃতিতে খালেদা জিয়া নাজির উদ্দিন জেহাদের স্মৃতির প্রতি শদ্ধা জানিয়ে তার আত্মার মাগফিরাত কামনা করেন।

দিবসটি পালন উপলক্ষে শহীদ জেহাদ স্মৃতি পরিষদ আজ শনিবার এক স্মরণ সভার আয়োজন করেছে। সকাল ১০টায় ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে অনুষ্ঠিত এ স্মরণ সভায় প্রধান অতিথি থাকছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খান।