২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

নৌ পথরক্ষা জাতীয় কমিটির ব্রহ্মপুত্রর খনন কাজ পরিদর্শন

স্টাফ রিপোর্টার ॥ নারায়ণগঞ্জের লাঙ্গলবন্ধে পুরাতন ব্রহ্মপুত্র নদের খনন কাজ পরিদর্শন করেছেন নৌ, সড়ক ও রেলপথ রক্ষা জাতীয় কমিটির (এনসিপিএসআরআর) নেতৃবৃন্দ। শনিবার সংগঠনের উপদেষ্টা ও বিশিষ্ট রাজনীতিবিদ নুরুর রহমান সেলিমের নেতৃত্বে পাঁচ সদস্যের একটি প্রতিনিধিদল খনন প্রকল্পের আওতাধীন দুই কিলোমিটার এলাকা পরিদর্শন করেন। এ সময় তাঁরা নারায়ণগঞ্জের বন্দর উপজেলা প্রশাসন ও খনন প্রকল্প বাস্তবায়নকারী সংস্থা বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ পরিবহন কর্তৃপক্ষের (বিআইডব্লিউটিএ) কর্মকর্তা এবং লাঙ্গলবন্ধ পূণ্যস্থান উদযাপন কমিটির নেতৃবৃন্দের সঙ্গেও কথা বলেন।

প্রতিনিধিদলের অন্য সদস্যরা হলেন- নৌ, সড়ক ও রেলপথ রক্ষা জাতীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক আশীষ কুমার দে, সহসভাপতি ও সাবেক সাংসদ এডভোকেট তাসনীম রানা, সিটিজেন্স রাইট্স মুভমেন্টের মহাসচিব তুসার রেহমান ও জাতীয় কমিটির যুগ্ম সম্পাদক সঞ্জীব বিশ্বাস। নেতৃবৃন্দ হিন্দু সম্প্রদায়ের অন্যতম ধর্মীয় উৎসব মহাষ্টমীর পূণ্য¯œানে প্রতিবছর অংশগ্রহণকারী লাখ লাখ পূণ্যার্থীর সুবিধার্থে এবং বিলুপ্ত-বেদখল নদ-নদী পুনরুদ্ধারের ধারাবাহিকতায় এককালের খরস্রোতা পুরাতন ব্রহ্মপুত্র নদের খনন কাজ শুরু করায় সরকার, বিআইডব্লিউটিএ, স্থানীয় প্রশাসন, জনপ্রতিনিধি ও স্থানীয় জনগণকে ধন্যবাদ জানান।

পরিদর্শন শেষে তাজপুরে পুরাতন ব্রহ্মপুত্র নদের প্রেমঘাট কালীমন্দির প্রাঙ্গণে এক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে সভাপতিত্ব করেন মূছাপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মাকসুদুল ইসলাম। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে জাতীয় কমিটির যুগ্ম সম্পাদক সঞ্জীব বিশ্বাস, মূছাপুর ইউনিয়ন পরিষদের সদস্যবৃন্দ, লাঙ্গলবন্ধ পূণ্য¯œান উদযাপন কমিটি ও নদসংলগ্ন বিভিন্ন ঘাটের মন্দির কমিটির নেতৃবৃন্দ এবং স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।

বন্দর ইউএনও নাজনীন আক্তার জানান, হিন্দু পূণ্যার্থীদের সুবিধার্থে পুরাতন ব্রহ্মপুত্র নদ খনন করা হচ্ছে। খনন কাজ শুরুর আগে বিআইডব্লিউটিএর অনুরোধে ও মাটি ফেলার সুবিধার্থে এই নদের বন্দর অংশের তীরের সব অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়েছে। এ ব্যাপারে স্থানীয় সাংসদ সেলিম ওসমান ও ইউপি চেয়ারম্যান মাকসুদুল ইসলাম উপজেলা প্রশাসন ও পুলিশকে সার্বিক সহায়তা করেছেন।

প্রসঙ্গত, গত ২৭ মার্চ নারায়ণগঞ্জের বন্দর উপজেলায় হিন্দু সম্প্রদায়ের পুণ্যস্থান পুরাতন ব্রহ্মপুত্র নদের লাঙ্গলবন্দে মহাষ্টমী স্নানের সময় ভিড়ের মধ্যে সাতজন মহিলাসহ ১০ পুণ্যার্থীর মৃত্যু হয়। রাজঘাট এলাকায় দুটি ঘাটে পূণ্যার্থীদের প্রচ- ভিড়ে পদদলিত হয়ে তাঁরা মারা যান। সংস্কার অভাবে ভরাট ও অবৈধ দখলের কারণে পুরাতন ব্রহ্মপুত্র নদ সংকুচিত হয়ে ওই দুর্ঘটনা ঘটে বলে বিভিন্ন গণমাধ্যমে খবর প্রকাশিত হয়। এর পর থেকেই নদটি খনন ও এর তীরের সব অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ এবং চৈত্র মাসের শুক্লা অষ্টমী তিথীতে বার্ষিক পূণ্য¯œানের সময় সেখানকার ব্যবস্থাপনার মানোন্নয়নের দাবি জানিয়ে আসছে নৌ, সড়ক ও রেলপথ রক্ষা জাতীয় কমিটি। নৌ পরিবহনমন্ত্রী শাজাহান খান গত ৫ অক্টোবর এই খনন কাজের উদ্বোধন করেন।