১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

স্কুলের সামনে আবর্জনার ভাগাড় ॥ ছড়াচ্ছে দুর্গন্ধ

স্টাফ রিপোর্টার, কক্সবাজার ॥ জেলার চকরিয়া পৌর শহরের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ স্থান সরকারী বালিকা বিদ্যালয় সড়কটি ময়লা আবর্জনার ভাগাড়ে পরিণত হয়েছে।

সড়ক লাগোয়া সোসাইটি কাঁচাবাজারের নষ্ট সবজির অংশবিশেষ এখানে ফেলার কারণে স্থানীয় জনগণ ও শিক্ষার্থীরা সীমাহীন দুর্ভোগে পড়েছে। বাধ্য হয়ে শত শত শিক্ষার্থী ময়লা আবর্জনার নরক যন্ত্রণা অতিক্রম করে চলাচল করছে প্রতিদিন। এ সড়ক হয়ে প্রতিদিন চকরিয়া আবাসিক মহিলা কলেজ, চকরিয়া কোরক বিদ্যাপীঠ, সেনাবাহিনী পরিচালিত ইংলিশ মিডিয়াম স্কুলসহ একাধিক শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে যাতায়াত করে থাকে ওই সব শিক্ষার্থী ও তাদের অভিভাবকরা। জানা যায়, চকরিয়া পৌরসভার পরিচ্ছন্নতার দায়িত্বে নিয়োজিত কর্মীরা রাতে ময়লা আর্বজনা অপসারণ করে থাকে। কিন্তু দিনের বেলায় বাজারের নষ্ট সবজিসমূহ সড়কের উপর ফেলার কারণে তা থেকে মারাত্মক দুর্গন্ধ সৃষ্টি হচ্ছে। স্থানীয় ব্যবসায়ী ও স্কুলের কয়েকজন শিক্ষক অভিযোগ করেছেন, ওসব লোকজনের গাফিলতির কারণে অনেক সময় কয়েক দিন ধরে ওই স্থানে ময়লা পড়ে থাকে। সম্প্রতি পৌরসভার সংশ্লিষ্টরা সোসাইটি কাঁচাবাজারের ময়লা ফেলার জন্য কয়েকটি কাটা ড্রাম রাখা আছে ওই স্থানে। আগে প্রতিদিন রাতে ময়লা অপসারণ করা হলেও বর্তমানে ৫-৬দিন পর্যন্ত ওসব ড্রামে রেখে দেয়া হচ্ছে। এতে সড়কের ওই অংশে দুর্গন্ধ ছড়িয়ে পড়ছে।

ব্যবসায়ীর মুক্তি দাবিতে মুন্সীগঞ্জে সমাবেশ

র‌্যাব পরিচয়ে অপহরণ

স্টাফ রিপোর্টার, মুন্সীগঞ্জ ॥ টঙ্গীবাড়ি উপজেলার কামারখাড়া বাজার ব্যবসায়ী কমিটির সভাপতি ও দীঘিরপাড় ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সহসভাপতি আনিসুর রহমান হালদারকে র‌্যাব পরিচয়ে অপহরণের প্রতিবাদে মানববন্ধন ও সমাবেশ করেছেন কামাড়খাড়া বাজারের ব্যবসায়ীরা। শনিবার সকাল থেকে দুপুর ১টা পর্যন্ত তিন ঘণ্টাব্যাপী টঙ্গীবাড়ি উপজেলার কামারখাড়া বাজারে প্রধান সড়কে এ কর্মসূচী পালন করা হয়। এতে বাজার ব্যবসায়ী ছাড়াও সর্বস্তরের মানুষ অংশ নেন। পাশাপাশি প্রতিবাদস্বরূপ ওই তিন ঘণ্টা বাজারের সব ধরনের ব্যবসা-প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে রাখেন ব্যবসায়ীরা।

মানববন্ধনকারী ব্যবসায়ীরা বলেন, কোন অভিযোগ ছাড়া র‌্যাব-২ পরিচয়ে একটি টিম বৃহস্পতিবার রাত ৮টার দিকে নিজ ব্যবসা প্রতিষ্ঠান রিয়া স্টোর থেকে তাকে তুলে নিয়ে যায়। কী কারণে তাকে ধরে নেয়া হয়েছে তা এখনও জানা যায়নি। অবিলম্বে তার মুক্তি দাবি করেন তারা।