২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

"রুশ সমর্থন ছাড়া সন্ত্রাসীরা সিরিয়া দখল করে রাশিয়ার দিকে আসবে"

অনলাইন ডেস্ক॥ সিরিয়ার বৈধ কর্তৃপক্ষকে সুস্থির হতে সহায়তা করে সেখানে রাজনৈতিক সমঝোতার পরিবেশ তৈরি করার জন্যই সিরিয়ায় রাশিয়ার সামরিক অভিযান চলছে বলে দাবি করেছেন রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন।

মি. পুতিন এটিও আশঙ্কা করেন যে, সিরিয়া অধিগ্রহণ করার পর সন্ত্রাসীরা হয়তো রাশিয়ার দিকে দৃষ্টি ফেরাবে।

রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন বলেছেন, "সিরিয় প্রেসিডেন্ট বাশার আল-আসাদকে যদি রাশিয়া সমর্থন না দেয় তাহলে, সিরিয়ার নিয়ন্ত্রণ নেবার পর এই সকল জঙ্গি গোষ্ঠী হয়তো রুশ সীমানার জন্য হুমকি হয়ে উঠতে পারে।"

রুশ সরকারি টেলিভিশনকে দেয়া এক সাক্ষাতকারে মি. পুতিন এইসব কথা বলেছেন। ইসলামিক স্টেট নয়, বরং সিরিয়ার অপেক্ষাকৃত উদার বিদ্রোহী গোষ্ঠীগুলোর উপরেই রাশিয়া বিমান হামলা করছে বলে পশ্চিমা বিশ্ব যে অভিযোগ করে আসছে সেটিকেও আবারো নাকচ করে দিয়েছেন মি. পুতিন।

এদিকে সিরিয়া প্রসঙ্গে সৌদি আরব ও রাশিয়ার মধ্যে যে মতপার্থক্য রয়েছে সে বিষয়ে সমাধান খুঁজতে সৌদি প্রতিরক্ষামন্ত্রী মোহাম্মদ বিন সালমান-এর সাথেও সাক্ষাত করেছেন মি. পুতিন। সিরিয়ার যে সকল বিদ্রোহী গোষ্ঠীর উপরে রাশিয়া বোমা হামলা করছে, তার মধ্যে সৌদি সমর্থিত বিদ্রোহী গোষ্ঠীও রয়েছে বলে মনে করা হয়।

দেশ দুটির মধ্যে মতপার্থক্য কমানোর জন্য সৌদি প্রতিরক্ষামন্ত্রীর সঙ্গে ভ্লাদিমির পুতিন একদিকে যখন বৈঠক করছেন, অন্যদিকে, সৌদির পররাষ্ট্রমন্ত্রী আদেল আল-জুবেইর বলেছেন যে, আসাদকে অবশ্যই ক্ষমতা থেকে সরে যেতেই হবে।

সূত্র : বিবিসি বাংলা