২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

টাঙ্গাইলে কাদের সিদ্দিকীর মনোনয়নপত্র বাতিল॥ বুধবারের হরতাল প্রত্যাহার

নিজস্ব সংবাদদাতা, টাঙ্গাইল॥ জাতীয় সংসদের টাঙ্গাইল-৪ (কালিহাতী) আসনের উপ-নির্বাচনে কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের সভাপতি বঙ্গবীর আব্দুল কাদের সিদ্দিকী ও তার স্ত্রী নাসরিন কাদের সিদ্দিকী সহ ৪ জনের মনোনয়নপত্র বাতিল করেছেন নির্বাচনের রির্টানিং কর্মকর্তা আলিমুজ্জামান।

মঙ্গলবার দুপুরে জেলা রির্টানিং অফিসারের কার্যালয়ে মনোনয়নপত্র বাছাই করা হয়। রিটার্নিং কর্মকর্তা জানান, সোনার বাংলা প্রকৌশলী সংস্থার নামে অগ্রণী ব্যাংকে ১০ কোটি ৮৮ লাখ ২৬ হাজার ৪১০ টাকা ঋণ থাকায় মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাইয়ে ঋণ খেলাপীর কারনে বঙ্গবীর আব্দুল কাদের সিদ্দিকী ও তার স্ত্রী নাসরিন কাদের সিদ্দিকীর মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়। অপরদিকে জাতীয় পার্টি (জাপা) প্রার্থী সৈয়দ মোস্তাক হোসেন রতনের জমা দেয়া কাগজপত্রে দলীয় মনোনয়নের বৈধ কাগজ না থাকায় এবং স্বতন্ত্র প্রার্থী আব্দুল আলিমের জমা দেয়া ১ শতাংশ ভোটারের তথ্যে গড়মিল থাকায় তাদের দু’জনের মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়।

এছাড়া স্বতন্ত্র প্রার্থী হাসমত আলী এবং বিএনএফ এর প্রার্থী আতাউর রহমান খানের আয়কর রির্টান দাখিলের কাগজে সমস্যা থাকায় তার মনোনয়নপত্র বিকেল ৫টা পর্যন্ত স্থগিত করা হয়েছে। গত ১১ অক্টোবর ১০জন প্রার্থী মনোনয়পত্র জমা দিয়েছিল।

এদিকে, কাদের সিদ্দিকী ও নাসরিন কাদের সিদ্দিকীর মনোনয়নপত্র বাতিল করার প্রতিবাদে শ্রমিক জনতা লীগের কর্মী-সমর্থকরা জেলায় আগামীকাল বুধবার সকাল-সন্ধ্যা হরতাল আহবান করে। এ সময় বিক্ষুব্ধ নেতাকর্মীরা কালিহাতীর এলেঙ্গা বাসস্ট্যান্ডে সমবেত হয়ে যানবাহন ভাংচুর করে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লাঠিচার্জ করলে ১০জন আহত হয়। পরে দুপুর আড়াইটার দিকে কাদের সিদ্দিকী এলেঙ্গা বাসস্ট্যান্ডে দলীয় নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে বক্তব্যকালে আগামীকাল বুধবারের ডাকা হরতাল প্রত্যাহারের ঘোষনা দেন।

আজ মঙ্গলবার বাছাই শেষে নির্বাচনের রির্টানিং কর্মকর্তা আলিমুজ্জামান ৪ জন প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বৈধ করেছেন। এরা হলেন- আওয়ামী লীগের প্রার্থী হাসান ইমাম খান সোহেল হাজারী, জাতীয় পার্টি (জেপি) সাদেক সিদ্দিকী, ন্যাশনাল পিপলস্ পার্টির প্রার্থী ইমরুল কায়েস ও স্বতন্ত্র প্রার্থী ইকবাল হোসেন সিদ্দিকী।

আগামী ২১ অক্টোবর মনোনয়ন প্রত্যাহারের শেষ দিন। পরদিন ২২ অক্টোবর প্রতীক বরাদ্দ দেয়া হবে। ভোট গ্রহন অনুষ্ঠিত হবে আগামী ১০ নভেম্বর।